kalerkantho

মঙ্গলবার। ২০ আগস্ট ২০১৯। ৫ ভাদ্র ১৪২৬। ১৮ জিলহজ ১৪৪০

তরুণীর প্রলোভন যেভাবে সামলেছিলেন রাহুল দ্রাবিড় (ভিডিওসহ)

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১২ জানুয়ারি, ২০১৯ ১৪:৪৯ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



তরুণীর প্রলোভন যেভাবে সামলেছিলেন রাহুল দ্রাবিড় (ভিডিওসহ)

বিশ্ব ক্রিকেটে যতজন 'জেন্টলম্যান' ক্রিকেটার আছেন রাহুল দ্রাবিড়ের নাম সেই তালিকার উপরের দিকে থাকবে। জনপ্রিয়তার শীর্ষে থাকা অবস্থায় একজন খেলোয়াড়ের জনসমক্ষে ব্যবহার ঠিক কেমন হওয়া উচিত- তার প্রকৃষ্ট উদাহরণ ছিলেন 'দ্য ওয়াল' খ্যাত ভারতের সাবেক এই ব্যাটসম্যান। সেই ভারতের দুই ক্রিকেটার লোকেশ রাহুল এবং হার্দিক পাণ্ডিয়া সম্প্রতি জনপ্রিয় টক শো-তে বিতর্কিত মন্তব্য করে নিষিদ্ধ হয়েছেন।

সম্প্রতি রাহুল দ্রাবিড়ের সাক্ষাত্কারের একটি পুরনো ভিডিও ভাইরাল হয়েছে নেট দুনিয়ায়। সেই ভিডিওতে দেখা যায়, সাক্ষাত্কার নেওয়া তরুণীর প্রলোভন ও আবদার বাউন্ডারির বাইরে হেলায় উড়িয়ে নিজের অবস্থানে অনড় থাকন তরুণ দ্রাবিড়। এমটিভিতে সম্প্রচারিত ওই সাক্ষাত্কারে ওই তরুণী দ্রাবিড়কে জিজ্ঞাসা করছেন, 'চারিদিকে প্রচুর ভক্ত আপনার। এত বিখ্যাত হওয়ার অনুভূতি কেমন?' উত্তরে রাহুল বললেন, 'আপনাকে বুঝতে হবে আপনি কী জন্য বিখ্যাত। সেই কাজটা করতে পারলে বিশেষ অনুভূতি এমনিতেই আসবে।'

এভাবে এগিয়ে যেতে থাকে সাক্ষাত্কার পর্ব। সাক্ষাত্কারের শেষে তরুণী সঞ্চালক বলেন, 'হ্যাঁ, এটাই হলো রাহুল দ্রাবিড়।' ইন্টারভিউ শেষ হয়। কিন্তু মূল ঘটনার শুরু তারপর। অফিসিয়াল ক্যামেরা বন্ধ থাকলেও ওই ঘরে চালু ছিল স্পাই ক্যাম। সেখানেই ধরা পড়ে 'দ্য ওয়াল' এর দৃঢ়তা। যদিও বোঝার কোনো উপায় ছিল না যে কক্ষে তখনও কোনো ক্যামেরা চলছে।

সাক্ষাত্কারের পর বিশ্রামের ভঙ্গিমায় বসে খাবার খেতে শুরু করেন দ্রাবিড়। তখন সঞ্চালক তরুণী বিপরীত দিকে বসে থাকা আসন ছেড়ে রাহুলের পাশে এসে বসেন। আর পাঁচজন ভক্তের মতোই দ্রাবিড়কে তিনি বলতে শুরু করেন, 'আমিও আপনার ভক্ত। আপনাকে টিভিতে দেখতে পেলেই আমার অন্য রকমের অনুভূতি হয়। তাই আমি একটা কথা আপনাকে জিজ্ঞাসা করতে চাই।'

তারপরই ওই তরুণী সঞ্চালক দ্রাবিড়কে বলে বসেন, 'রাহুল, আপনি আমাকে বিয়ে করবেন?' এই শুনেই আসন ছেড়ে তরুণীর থেকে দুই পা পিছিয়ে যান রাহুল। তরুণী তখনও বলতে থাকেন, 'প্লিজ..প্লিজ...' এই শুনে দ্রাবিড়ের উত্তর, 'আপনি পাগল?”

এই বলে ঘর থেকে বেরিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন দ্রাবিড়। তখন ওই তরুণী এক জনকে ডেকে আনেন। তিনি এসে রাহুলকে শান্ত করে সোফায় বসান। তখন দ্রাবিড় ওই তরুণীকে জিজ্ঞাসা করেন, 'তোমার বয়স কত?' উত্তরে তরুণী জানান তার বয়স ২০ বছর। তখন দ্রাবিড় ওই তরুণীকে বলেন, 'আমার মনে হয় বিয়ের ভুত মাথা থেকে সরিয়ে তোমার পড়াশোনায় আরও মনযোগী হওয়া উচিত।'

তারকা হয়েও কীভাবে প্রলোভন এড়াতে হয় তার জ্বলন্ত প্রমাণ এই ভিডিও সাক্ষাতকারটি। বাংলাদেশেও এমন অনেক ক্রিকেটার প্রলোভন সামলাতে না পেরে বিপথে গিয়েছেন। শেষ হয়ে গেছে তাদের ক্যারিয়ার। তারা সবাই শিক্ষা নিতে পারেন রাহুল দ্রাবিড়ের থেকে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা