kalerkantho

স্পনসর হারালেন হার্দিক; বিশ্বকাপ খেলা অনিশ্চিত!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১২ জানুয়ারি, ২০১৯ ১৪:২৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



স্পনসর হারালেন হার্দিক; বিশ্বকাপ খেলা অনিশ্চিত!

সচেতনভাবে কিংবা অবচেতনভাবে বলে ফেলা কিছু অশালীন কথা এখন ক্যারিয়ার শেষ করে দিচ্ছে ভারতীয় অল-রাউন্ডার হার্দিক পাণ্ডিয়ার। ভারতের টিভি শো 'কফি উইথ করণ' অনুষ্ঠানে নারীবিদ্বেষী মন্তব্যের জন্য ইতিমধ্যেই নিষিদ্ধ হয়েছেন তিনি। সেই সঙ্গে আরও চাপে পড়লেন হার্দিক পাণ্ডিয়া। ভারতীয় অলরাউন্ডারের সঙ্গে সম্পর্কচ্ছেদের কথা ঘোষণা করেছে স্পনসর কম্পানি 'জিলেট'।

গত বছর জিলেটের ব্র্যান্ড অ্যামবাসাডর হিসেবে চুক্তিবদ্ধ হয়েছিলেন হার্দিক। কিন্তু, সেই সম্পর্ক দীর্ঘস্থায়ী হলো না। নতুন বছরের শুরুতেই স্পনসর হারালেন তিনি।ভারতে জিলেটের মুখপাত্র এক বিবৃতিতে বলেছেন, 'হার্দিক পাণ্ডিয়ার সাম্প্রতিক কথাবার্তা আমাদের মূল্যবোধের সঙ্গে মিলছে না। তাই পরবর্তী সিদ্ধান্ত না নেওয়া পর্য়ন্ত হার্দিকের সঙ্গে সম্পর্কচ্ছেদ করছি।' 

শৃঙ্খলাজনিত কারণে অস্ট্রেলিয়া থেকে লোকেশ রাহুলের সঙ্গে হার্দিককেও দেশে ফেরত পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড। সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে গড়া প্রশাসকদের কমিটি বা সিওএ দুজনকেই নতুন করে শোকজ করেছে। যতদিন না তদন্ত শেষ হচ্ছে, ততদিন বিসিসিআই, আইসিসি বা কোনো রাজ্য ক্রিকেট সংস্থার কোনও প্রতিযোগিতায় খেলতে পারবেন না তারা। চলতি মাসেই নিউজিল্যান্ড সফর এমনকী আইপিএলেও সম্ভবত খেলা হচ্ছে না রাহুল-হার্দিকের।

কিন্তু এই দুই তারকার জন্য হয়তো অপেক্ষা করছে আরও বড় দুঃসংবাদ। প্রশাসকদের কমিটির অন্যতম সদস্য ডায়না এডুলজি আবার বিশ্বকাপের দল থেকেও বাদ দিতে চাইছেন দুজনকে। বিশ্বকাপ প্রসঙ্গে তিনি বলেছেন, 'তা হতেই পারে (বাদ দেওয়া)। কেউই খেলার ঊর্ধ্বে নয়। কেউই সংস্থার চেয়ে বড় নয়। কোড অব কন্ডাক্ট বলে একটা ব্যাপার আছে। চুক্তিতেও সব লেখা আছে। সেই নিয়মকানুন, আচরণবিধি মেনে চলতে হবে। এই ধরনের কথাবার্তা বোর্ডের ভাবমূর্তি নষ্ট করছে।'

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা