kalerkantho

সোমবার । ৪ ফাল্গুন ১৪২৬ । ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০। ২২ জমাদিউস সানি ১৪৪১

করোনা ইস্যুতে কেন ডাকল না চীন? অসন্তুষ্ট যুক্তরাষ্ট্র

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ১৩:১৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



করোনা ইস্যুতে কেন ডাকল না চীন? অসন্তুষ্ট যুক্তরাষ্ট্র

করোনাভাইরাসের প্রকোপকে ভাইরাস যুদ্ধ হিসেবে উল্লেখ করেছে চীন। এরই মধ্যে দায়িত্বে অবহেলাসহ বেশ কিছু কারণে সে দেশের উচ্চপদস্থ বেশ কয়েকজন কর্মকর্তাকে পদচ্যুত করা হয়েছে। 

যদিও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা থেকে শুরু করে বিভিন্ন দেশের নেতারা করোনাভাইরাস মোকাবিলায় চীনের ওপর আস্থা রেখেছে। চীনের চিকিৎসক থেকে শুরু করে নার্স, হাসপাতালের কর্মকর্তা-কর্মচারী, সৎকারকর্মী এবং সামরিক বাহিনীর সদস্যরা দিনরাত এক করে কাজ করে যাচ্ছেন।

তবে করোনাভাইরাস ইস্যুতে চীনের ওপর অসন্তুষ্টি প্রকাশ করেছে যুক্তরাষ্ট্র। যুক্তরাষ্ট্র বলছে, চীন সরকার কোভিড-১৯ মোকাবিলায় আরো স্বচ্ছ হওয়া দরকার।

জানা গেছে, বেইজিংয়ে উচ্চপদস্থ নেতারা বৈঠক করেছেন। সেখানে সঙ্কটের প্রকৃতি নির্ধারণ এবং সমাধানের পথ নিয়ে দীর্ঘ আলোচনা হয়। উহান শহরে যারা আক্রান্ত আছেন তাদের দ্রুত চিহ্নিত এবং চিকিৎসা দেওয়ার ব্যাপারে তাগিদ দেওয়া হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবারের ওই বৈঠকের পর আরো বেশি গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে আক্রান্তদের শনাক্তের কাজ।

তবে হোয়াইট হাউসের কর্মকর্তা ল্যারি কুডলো চীনের ওপর অসন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন। যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল ইকোনমিক কাউন্সিলের এই পরিচালক বলেন, আমরা একটু অসন্তুষ্ট যে, সেখানে (চীনে) আমাদের ডাকা হয়নি। চীন সরকারের দেওয়া তথ্যের স্বচ্ছতার ব্যাপারে আমরা একটু অসন্তুষ্ট।

তিনি আরো বলেন, প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে বলেছেন যুক্তরাষ্ট্রের সাহায্য গ্রহণ করবে বেইজিং। কিন্তু তারা আমাদের কিছুই জানাল না।

তিনি আরো বলেন, তাদের মানসিকতা আমরা বুঝতে পারছি না। আমি মনে করি, সেখানে আরো অনেক বেশি মানুষ ভোগান্তি সহ্য করছে। আমাদের সন্দেহ হচ্ছে যে, পলিটব্যুরো কি সত্যিই আমাদের কাছে সত্য বলছে?

৫৯ জনের মৃত্যু এবং দুই হাজারের বেশি মানুষ আক্রান্তের পর উহান শহরকে বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া হয়। সেখানকার রাস্তায় কোনো গাড়ি চলছে না, মানুষজন সঠিক তথ্য পাচ্ছে না। সে কারণে অনেকেই চিকিৎসা সেবা নিতেও পারছে বলে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা