kalerkantho

বুধবার । ১২ মাঘ ১৪২৮। ২৬ জানুয়ারি ২০২২। ২২ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

গাইবান্ধায় ইমদাদুল হক মিলন

গাইবান্ধা প্রতিনিধি   

৫ নভেম্বর, ২০২১ ২০:২১ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



গাইবান্ধায় ইমদাদুল হক মিলন

গাইবান্ধার ফুলছড়ি উপজেলার দূর্গম চর কোচখালিতে আজ শুক্রবার প্রখ্যাত কথা সাহিত্যিক ও ইস্টওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপের পরিচালক ইমদাদুল হক মিলনের হাত থেকে কালের কণ্ঠ শুভ সংঘের ছাগল ও হাঁস মুরগি পেলেন রাহেলা বেওয়া(৬৮)  ও রেহেনা বেওয়া (৭০) নামে দুই নারী। সহায়তা পেয়ে আবেগ আপ্লুত রেহেনা বললেন, ‘চরোত আসিয়া বকরি , মুরগি দিলেন তোমরা।   কাঁইয়ো খোঁজ নেয় না, কি ভাবে দিন গুজরাণ করি! আল্লাহ তোমাঘরের ভাল করুক’।

একই সঙ্গে ওই চর গ্রামের প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ২১ শিক্ষার্থীকে দেওয়া হয় শিক্ষা উপকরণ।

বিজ্ঞাপন

শিশুদের উল্লাস আর চিৎকারে অন্যরকম ভাললাগা ছড়ায় গ্রামটিতে। স্থানীয় বেসরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণীর ছাত্র তৌহিদ বলল, খাতা কলম কিনব্যার পাই নে, পড়ালেখায় খ্যুবে সমস্যা। কয়েকটাদিন ভাল যাবে। স্কুলোত যায়্যা সগলেক দেখাপ্যার পামো।

সকালে দুটি নৌকায় করে দীর্ঘপথ পাড়ি দিয়ে ব্রহ্মপুত্র ঘেরা ওই চরে যায় শুভসংঘের বন্ধুরা। ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপের পরিচালক ইমদাদুল হক মিলনসহ এ সময় উপস্থিত ছিলেন শুভ সংঘের পরিচালক জাকারিয়া জামান, দৈনিক কালের কণ্ঠের বগুড়া ব্যুরো প্রধান ও শুভসংঘের কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি লিমন বাশার, কবি ও লিটলম্যাগ সম্পাদক সরোজ দেব, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. মাহমুদ হোসেন,  শুভ সংঘের জেলা সভাপতি তৌহিদা মাহমুদ, সাধারণ সম্পাদক লতা সরকার ও দৈনিক কালের কণ্ঠের জেলা প্রতিনিধি অমিতাভ দাশ হিমুনসহ অন্যরা।   

ইমদাদুল হক মিলন বলেন, শুভসংঘ বসুন্ধরা গ্রুপের চেয়ারম্যান আহমেদ আকবর সোবহানের মানবিক নির্দেশনায় করোনাকালে মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে। আজও সেই মানুষটির প্রত্যক্ষ তত্তাবধানে প্রত্যন্ত চরাঞ্চলে এসেছি। আগামীতেও এই কর্মকান্ড অব্যাহত থাকবে। তিনি শিশুসহ চরবাসীর সঙ্গে কথা বলে তাদের সমস্যা জানতে চান।   এরপর তিনি গাইবান্ধার দারিয়াপুরে ঐতিহ্যবাহী ’খৈতানের পালা’ উপভোগ করেন।  

এর আগে তিনি গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে গাইবান্ধা পাবলিক লাইব্রেরী মিলনায়তনে স্থানীয় শিল্পী, সাহিত্যিক ,সাংস্কৃতিক কর্মী, শিক্ষক, রাজনীতিকদের সঙ্গে ‘আলাপচারিতা’ শীর্ষক অনুষ্ঠানে যোগ দেন। কালের কণ্ঠ শুভসংঘ আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন গাইবান্ধা পৌর মেয়র মো. মতলবুর রহমান।  

শুভসংঘ জেলা শাখার সভাপতি অধ্যাপক তৌহিদা মাহমুদের সভাপতিত্বে এতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন জেলা সম্পাদক লতা সরকার। বক্তব্য রাখেন  লিটলম্যাগ সম্পাদক ও কবি সরোজ দেব, বিশিষ্ট ক্রীড়া সংগঠক ওয়াজিউর রহমান রাফেল,শুভ সংঘের পরিচালক জাকারিয়া জামান, কালের কণ্ঠের বগুড়ার নিজস্ব প্রতিবেদক লিমন বাশার, মুক্তিযুদ্ধ গবেষক অধ্যাপক জহুরুল কাইয়ুম, আবৃত্তি শিল্পী দেবাশীষ দাশ দেবু, গাইবান্ধা পাবলিক লাইব্রেরী এন্ড ক্লাবের সম্পাদক জিয়াউল হক জনি, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি আলমগীর কবীর বাদল, অধ্যাপক আসাদুল ইসলাম, নাট্যজন জুলফিকার চঞ্চল, সমাজকর্মী জিয়াউল হক কামাল, কবি নাজমিন শুচি , অঞ্জলী রানী দেবী, আবুল কাশেম ইয়াসবীর প্রমুখ।



সাতদিনের সেরা