kalerkantho

সোমবার । ৫ আশ্বিন ১৪২৮। ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১২ সফর ১৪৪৩

কালের কণ্ঠ শুভসংঘ'র খাদ্যসামগ্রী পেল সোনাতলার ৩০০ দুস্থ পরিবার

লিমন বাসার ও নাজমুল হুদা, বগুড়া থেকে   

৩০ জুলাই, ২০২১ ১৭:৫০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



কালের কণ্ঠ শুভসংঘ'র খাদ্যসামগ্রী পেল সোনাতলার ৩০০ দুস্থ পরিবার

বগুড়া জেলার সোনাতলা উপজেলায় ৩০০ অসহায় ও দুস্থ পরিবারের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করেছে কালের কণ্ঠ শুভসংঘ। বসুন্ধরা গ্রুপের সহায়তায় এই খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করে শুভসংঘের সদস্যরা।

আজ শুক্রবার সোনাতলা মডেল হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ মাঠে স্বাস্থ্যবিধি মেনে বসুন্ধরা গ্রুপের সহায়তায় এই সহায়তা দেওয়া হয়।

বসুন্ধরা গ্রুপের খাদ্যসামগ্রী পেয়ে দুললি বেগম বলেন, 'হামার ১০ বছর হচে স্বামী মারা গেছো। এহন কেউ খোঁজ খবর লয় না। ছোল ট্যাকা দেয় না। একাই থাকি। আগে কামকাজ করবার পারতাম এহন পারিচ্চি না। মাইমষেরতে চাইয়া-চিন্তা (ভিক্ষা করে) খাই। তোমকেরা হামাক দুইটা ডাইল ভাত খাবার দিচ্ছো। তোমকেরা আরও বড় হও।'

১৮ বছর ধরে পা হারিয়েছেন আব্দুল হামিদ। লাঠিতে ভর দিয়ে নামের এক উপকারভোগী বলেন, বুড়া হইয়া গেছি কোন কাম করবার পারিচ্চি না। হামার ছোল নাই। বয়স্ক ভাতার ট্যাকা দিয়া খাই। তোমাকের ত্রাণে অনেক দিন চলবার পারমু। তোমাকের জন্য দোয়া করিচ্চি, মঙ্গল হোক।

খাদ্যসামগ্রী বিতরণ কার্যক্রমে উপস্থিত হয়ে সোনাতলা উপজেলা চেয়ারম্যান মিনহাদুজ্জামান লিটন বলেন, করোনায় লকডাউনের মধ্যে বগুড়া জেলাসহ সারাদেশে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে কালের কণ্ঠ শুভসংঘ ও বসুন্ধরা গ্রুপ। আমি তাই সোনাতলা উপজেলার পক্ষ থেকে বসুন্ধরা গ্রুপ ও শুভসংঘের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাই। যারা আজকে খাদ্যসামগ্রী পেয়েছেন আপনারা তাদের জন্য দোয়া করবেন। বসুন্ধরা গ্রুপ যেন ব্যবসায় আরো ভালো করতে পারে এবং আপনাদের পাশে বেশি বেশি দাঁড়াতে পারে। বসুন্ধরা গ্রুপের চেয়ারম্যানের জন্যও সবাই দোয়া করবেন। বর্তমানে করোনা ভয়াবহ রূপ ধারণ করছে। তাই নিজের জীবনকে সুরক্ষা করতে সবাই স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলবেন। সরকারের দেওয়া যেই বিধিনিষেধ রয়েছে সেগুলো মেনে চলবেন। কেউ অযথা বাইরে ঘোরাঘুরি করবেন না। মাস্ক পড়বেন। সবাই সচেতন থাকবেন।

খাদ্যসামগ্রী বিতরণ কার্যক্রমে আরো উপস্থিত ছিলেন সোনাতলা মডেল হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ মো. মতিয়ার রহমান, কালের কণ্ঠ শুভসংঘের পরিচালক জাকারিয়া জামান, কেন্দ্রীয় কমিটির কর্ম ও পরিকল্পনা বিষয়ক সম্পাদক ইশতিয়াক আহমেদ জাহিন, সদস্য শরীফ মাহ্দী আশরাফ জীবন, বগুড়া জেলার উপদেষ্টা মোস্তফা মাহমুদ শাওন ও নাহারুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক শিশির মোস্তাফিজ, সদস্য মশিউর রহমান জুয়েল, শেরে বাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের সভাপতি সাব্বির হোসেন সুজন, উত্তরা ইউনিভার্সিটির সাবেক সভাপতি আলমগীর হোসেন রনিসহ আব্দুল মতিন, তুষার, জিতু, মানিক, অমিত চঞ্চল, সিরাজুল, মিরাজ, জিহাদ, শাওন, নাহিদ, রিশাত, সুজন, সোহেল, ফিলিপস।



সাতদিনের সেরা