kalerkantho

রবিবার। ২৮ চৈত্র ১৪২৭। ১১ এপ্রিল ২০২১। ২৭ শাবান ১৪৪২

কাপাসিয়ায় কালের কণ্ঠ শুভসংঘের কম্বল বিতরণ

সাব্বির আহমেদ   

১৮ জানুয়ারি, ২০২১ ১৭:৩৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কাপাসিয়ায় কালের কণ্ঠ শুভসংঘের কম্বল বিতরণ

সকাল প্রায় এগারোটা। তখনও কুয়াশাজড়ানো প্রকৃতি। শীতল হাওয়া যেন গায়ে বিঁধে যাওয়ার মতো। অনেকের গায়েই গরম কাপড় নেই। অনেকটা জুবুথুবু হয়েই গোটা পঞ্চাশেক মানুষ জড়ো হন কম্বল নিতে। সামনে শীতের কম্বলগুলো টেবিলে থরে থরে সাজানো। সবার মধ্যে স্বস্তির বহিঃপ্রকাশ। সোমবার গাজীপুরের কাপাসিয়ার উলুসারা গ্রামে কালের কণ্ঠের শুভসংঘের উদ্যোগে সুবিধাবঞ্চিত নাগরিকদের মধ্যে কম্বল বিতরণের আয়োজনের দৃশ্যটা এমনই ছিল। 

কম্বল নিতে আসা বেশিরভাগই ছিলেন নারী। মানুষের বাসা বাড়িতে কাজ করে একচোখ হারিয়েছেন আয়মন বিবি। এই বৃদ্ধা একটা কম্বল পেয়ে বেজায় খুশি। তিনি বলেন, ‘রাইতে ঢেরার চালের (টিনের ফাপড়া ঘর) ফাঁক দিয়ে ঠাণ্ডা ঢুহে। গতরে একটা চাইদ্দর আর হিতানে (বিছানায়) পাতলা দরি দরি খেতা ছাড়া ঘরে কিছু নাই। বাজান কম্বলটা পাইয়া পরানডা ম্যালা শান্তি লাগতাছে।’

এর আগে কোথাও থেকে শীতবস্ত্র পাননি হাফিজা খাতুন। ঘরে প্রতিবন্ধী স্বামী। জীর্ণশীর্ণ একটি ঘরে রাত কাটে তাদের। একটি কম্বলে যেন তারা উষ্ণতা খুঁজে পেয়েছেন। বাড়িঘর নেই বৃদ্ধ মনু মিয়ার। বাড়ি পাহারাদার হিসেবে থাকেন ভাগিনার বাড়িতে। রোগে শোকে লাঠি ভর দিয়েও হাঁটতে পারেন না। শীতে কম্বল পেয়ে মুখে এক ঝলক হাসি দিয়ে তৃপ্তির জানান দেন তিনি। এতিম শিশু সেফাত শুভ কম্বল পেয়ে হাসিতে বাড়ির দিকে দৌড়ে চলে যায়। 

প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে কম্বল বিতরণ করেন টোক ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক স্বর্ণপদক প্রাপ্ত চেয়ারম্যান এম এ জলিল। এ সময় কালের কণ্ঠের শুভসংঘের এমন মহৎ কর্মে স্বাগত জানান অগ্রণী ব্যাংক কর্মকর্তা ও টোক পেশাজীবী ফোরামের সভাপতি মো. আশরাফ উদ্দিন আসিফ, আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুস ছালাম মাস্টার, স্থানীয় স্কুলের শিক্ষক শ্রী কাঞ্চন কুমার ভৌতিক ভূষণ, আতিকা মাসুম, সাংবাদিক সাব্বির আহমেদ প্রমুখ।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা