kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৫ জুন ২০১৯। ১১ আষাঢ় ১৪২৬। ২২ শাওয়াল ১৪৪০

বুদ্ধপূর্ণিমায় রাঙামাটিতে ধর্মীয় শোভাযাত্রা

রাঙামাটি প্রতিনিধি   

১৮ মে, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বুদ্ধপূর্ণিমায় রাঙামাটিতে ধর্মীয় শোভাযাত্রা

বুদ্ধপূর্ণিমা উপলক্ষে গতকাল রাঙামাটিতে ধর্মীয় শোভাযাত্রা বের করা হয়। ছবি : কালের কণ্ঠ

বুদ্ধপূর্ণিমা (বৈশাখী পূর্ণিমা) উপলক্ষে রাঙামাটিতে বিশ্ব শান্তি ও মঙ্গল কামনা করে বর্ণাঢ্য ধর্মীয় শোভাযাত্রা ও আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল শুক্রবার সকালে পার্বত্য ভিক্ষু সংঘ ও আনন্দ বিহার সদ্ধর্ম দায়ক-দায়িকার উদ্যোগে এই শোভাযাত্রার আয়োজন করা হয়। দিনটিকে ঘিরে কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়েছে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

রাঙামাটি জেলা প্রশাসন কার্যালয় চত্বরে ফিতা কেটে শোভাযাত্রার উদ্বোধন করেন রাঙামাটি আসনের সংসদ সদস্য দীপংকর তালুকদার। পরে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রাটি জেলা প্রশাসন কার্যালয় থেকে শুরু হয়ে শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে আনন্দ বিহার প্রাঙ্গণে গিয়ে শেষ হয়। শোভাযাত্রায় রং-বেরঙের বৌদ্ধ পতাকা হাতে নিয়ে পুণ্যার্থীরা অংশ নেয়।

পরে আনন্দ বিহার উপাসনালয়ে ধর্মীয় আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনাসভায় পার্বত্য ভিক্ষু সংঘের সভাপতি শ্রীমৎ শ্রদ্ধালংকার ভিক্ষুর সভাপতিত্বে বক্তব্যে দেন চাকমা রাজ বিহারের অধ্যক্ষ শীলপাল ভিক্ষু, বুদ্ধদত্ত ভিক্ষু, রাঙামাটি জেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা, বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের সদস্য দীপক চাকমা, সম্বোধি ওয়েলফেয়ার সোসাইটির সাধারণ সম্পাদক ইন্দু লাল চাকমা।

সভায় শ্রীমৎ শ্রদ্ধালংকার ভিক্ষু বলেন, ‘বুদ্ধের দেখানো পথ ছেড়ে আমরা অন্য পথে হাঁটছি। তাই আমাদের দুঃখ কাটছে না। বিলাসিতা, শৌখিনতা আমাদের গ্রাস করে ফেলেছে। এটা পরিহার করতে হবে। মানবকল্যাণে এগিয়ে আসতে হবে। সংঘাত ছাড়া ভয়ভীতিহীন ধর্মীয় অনুষ্ঠান পালনের পথ উন্মুক্ত করতে হবে।’

এই ধর্মীয় গুরু আরো বলেন, ‘বৈশাখ মাসের পূর্ণিমার দিন মহামতি বুদ্ধের জন্মজয়ন্তী। একই দিনে জন্ম, বুদ্ধত্ব লাভ ও মহাপরিনির্বাণ পৃথিবীর কোনো মহাপুরুষের জীবনে একসঙ্গে ঘটেনি। তাই বুদ্ধের ত্রি-স্মৃতিবিজড়িত এই দিনটি আমাদের কাছে পরম পাওয়া।’

এদিকে বুদ্ধপূর্ণিমায় জঙ্গি হামলার হুমকিতে রাঙামাটিতে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ব্যাপক নিরাপত্তা জোরদার করেছে। রাঙামাটির রাজ বন বিহারসহ বিভিন্ন বুদ্ধমন্দিরে অস্থায়ী চেকপোস্ট বসিয়ে গাড়ি ও লোকজনের ব্যাগ তল্লাশি করা হচ্ছে। এ ছাড়া শহরের বিভিন্ন স্থানে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা