kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১২ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১৪ রবিউস সানি     

বান্দরবান সীমান্তে স্থলমাইন বিস্ফোরণে ৩ রোহিঙ্গা নিহত

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১০ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১৩:৫৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বান্দরবান সীমান্তে স্থলমাইন বিস্ফোরণে ৩ রোহিঙ্গা নিহত

বান্দরবান সীমান্তের মিয়ানমার অংশে আবারও স্থলমাইন বিস্ফোরণে তিনজন রোহিঙ্গা মুসলিম নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আরও তিনজন আহত হয়েছেন। গতকাল শনিবার ও আজ রবিবার নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার মিয়ানমার সীমান্ত সংলগ্ন রেজু আমতলি ও তুমব্রু সীমান্তে এ ঘটনা ঘটে।

এ ব্যাপারে বান্দরবানের ঘুমধুম ইউপি চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আজিজ জানান, শনিবার রাত ১০টার দিকে রেজু অমতলি সীমান্তের জিরো লাইনের কাছে স্থলমাইন বিস্ফোরণ হলে ৩ রোহিঙ্গা নিহত ও একজন আহত হন। সীমান্ত অতিক্রম করে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের চেষ্টাকালে এ হতাহতের ঘটনা ঘটে।

অপর স্থলমাইন বিস্ফোরণটি আজ রবিবার ভোরে তুমব্রু সীমান্তে ঘটেছে। বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমান্তের ৩৭-৩৮ নম্বর পিলারের মধ্যস্থানে এ ঘটনাটি ঘটে। এ বিস্ফোরণে আহত হয়েছেন দুজন।

আহতরা হলেন মো. হাসান (৩২) ও আতা উল্লাহ। হাসান ঘুমধুমের বাইশফাড়ি এলাকার বাসিন্দা আবুল খায়েরের পুত্র। অপরজন রোহিঙ্গা যুবক, কিন্তু তার বিস্তারিত পরিচয় পাওয়া যায়নি।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, রবিবার সকাল ৬টা ১০ মিনিটের সময় ঘুমধুমের তুমব্রু সীমান্ত দিয়ে হাসান গরু আনতে গেলে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর পুঁতে রাখা স্থলমাইন বিস্ফোরণে গুরুতর আহত হন তিনি। তার ১টি পা উড়ে যায় এবং চোখেও আঘাত লাগে। এ ঘটনায় আতা উল্লাহ নামের এক রোহিঙ্গা যুবকও আহত হয়। পরে স্থানীয়রা মুমূর্ষু অবস্থায় তাদের উদ্ধার করে। বর্তমানে তারা উখিয়া কুতুপালং ইউএনএইচসিআর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এ ব্যাপারে বাইশফাড়ি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নুরুল কবির জানান, সকালে সীমান্তে মাইন বিস্ফোরনে এক যুবকের পা উড়ে গেছে বলে শুনেছি।

বাংলাদেশ সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিজিবির কর্মকর্তরা স্থলমাইন বিস্ফোরণে হতাহতের কথা স্বীকার করেছেন। তবে তারা বিস্তারিত কিছু জানাননি।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা