kalerkantho

শুক্রবার । ২৪ মে ২০১৯। ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ১৮ রমজান ১৪৪০

পদ্মায় গোসলে নেমে তলিয়ে গেল তিন বোন

বড়ালে ডুবল শিশু

বাঘা (রাজশাহী) ও ভাঙ্গুড়া (পাবনা) প্রতিনিধি   

২৩ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



রাজশাহীর বাঘায় পদ্মা নদীতে গোসল করতে নেমে তিন বোন তলিয়ে গেছে। তা ছাড়া পাবনার ভাঙ্গুড়ায় নদীতে পড়ে গিয়ে এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে।

রাজশাহীর বাঘা উপজেলার মীরগঞ্জে পদ্মা নদীতে গোসল করতে নেমে তিন বোনের মৃত্যু হয়েছে। তাদের মধ্যে দুজন স্কুল ও একজন কলেজের ছাত্রী। গত রবিবার দুপুরে উপজেলার মীরগঞ্জ বিওপির পাশে সুফিয়ানের ঘাটে এ ঘটনা ঘটে।

উপজেলার মীরগঞ্জ ভানুকর গ্রামের জিল্লুর রহমানের মেয়ে মীরগঞ্জ কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্রী জিম আক্তার (১৭), মীরগঞ্জ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রী এশা আক্তার (৯) ও জিল্লুর রহমানের ভাই শহীদুল ইসলামের মেয়ে মীরগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী শিপলা খাতুন (১২) স্থানীয় বিওপির পাশে পদ্মা নদীর সুফিয়ানের ঘাটে গোসল করতে গেলে পানিতে ডুবে যায়।

বাঘা থানার ওসি মহসীন আলী বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, স্থানীয়রা উদ্ধার করে ওই তিন বোনকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিন রেজা ও উপজেলা চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট লায়েব উদ্দীন লাভলু ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিন রেজা বলেন, এ ঘটনায় জেলা প্রশাসকের নির্দেশে এক পরিবারকে ৪০ হাজার ও অন্য পরিবারকে ২০ হাজার টাকা দেওয়া হয়েছে।

এদিকে পাবনার ভাঙ্গুড়ায় খেলার সময় নদীতে পড়ে ফাহিম হোসেন (৬) নামের এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। গতকাল সোমবার দুপুরে ভাঙ্গুড়া পৌর শহরের মেন্দা মহল্লার শাহপাড়া বড়াল নদীর ঘাটে এ ঘটনা ঘটে। ফাহিম নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলা সদরের নাসির উদ্দিনের ছেলে। সে ভাঙ্গুড়া পৌর শহরে বাস করত।

মন্তব্য