kalerkantho

রবিবার । ২৬ মে ২০১৯। ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ২০ রমজান ১৪৪০

সেনাবাহিনীতে চাকরির নামে দেড় কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ

চাটমোহরে সাবেক সেনা সদস্য আটক

চাটমোহর (পাবনা) প্রতিনিধি   

১৮ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সেনাবাহিনীতে চাকরির নামে দেড় কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ

সানোয়ার হোসেন

বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর বিভিন্ন দপ্তরে চাকরি দেওয়ার নামে বিভিন্নজনের কাছ থেকে প্রায় দেড় কোটি টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগে সানোয়ার হোসেন নামের সাবেক এক সেনা সদস্যকে আটক করা হয়েছে। এ ব্যাপারে লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে গত মঙ্গলবার পাবনার চাটমোহর থানা পুলিশ তাঁকে আটক করে।

সানোয়ার হোসেন উপজেলার বিলচলন ইউনিয়নের রামনগর গ্রামের আব্দুল জব্বারের ছেলে। সেনাবাহিনীতে চাকরি করা অবস্থায় নৈতিক স্খলনের কারণে তিনি বহিষ্কৃত হয়েছিলেন বলে জানা গেছে।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, সেনাবাহিনীতে চাকরি দেওয়ার নামে অনেকের কাছ থেকে তিনি মোটা অঙ্কের টাকা নেন। তাঁর দেওয়া নিয়োগপত্র নিয়ে কর্মস্থলে যোগ দিতে গেলে সেগুলো ভুয়া বলে জানা যায়। তখনই তাঁর প্রতারণার বিষয়টি জানাজানি হয়। এ ব্যাপারে গত ৫ এপ্রিল চাটমোহর থানায় সানোয়ার হোসেন, তাঁর ছেলে শাকিল, স্ত্রী বাসিরুন ও সহযোগী আব্দুল জব্বার মোল্লার বিরুদ্ধে ৩২ লাখ টাকা আত্মসাতের লিখিত অভিযোগ জানান সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া থানার কোনাবাড়ী গ্রামের আব্দুল হালিম।

এদিকে গত মঙ্গলবার বিকেলে সানোয়ার আটক হওয়ার খবর পেয়ে চাটমোহর থানায় প্রতারিতরা ভিড় জমায়। টাকা ফেরত চাওয়ার পাশাপাশি তারা প্রতারক সানোয়ারের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানায়। এ সময় সানোয়ারের বিরুদ্ধে আরো বেশ কয়েকজন ভুক্তভোগী লিখিত অভিযোগ করে। লিখিত অভিযোগ দেওয়া অন্য ব্যক্তিদের মধ্যে সিরাজগঞ্জের সলঙ্গা থানার মাহমুদপুরের আব্দুস সাত্তারের ২২ লাখ, চাটমোহরের কুকরাগাড়ী গ্রামের মহসিন আলীর তিন লাখ, আগশোয়াইল গ্রামের আব্দুল মতিন সরকারের ২৮ লাখ ৭০ হাজার, একই গ্রামের আব্দুর রহিমের চার লাখসহ আরো চারজন ৩৯ লাখ টাকা আত্মসাৎ করা হয়।

চাটমোহর থানার ওসি শেখ নাসির উদ্দিন জানান, সানোয়ারের পাঁচ দিনের রিমান্ড চাওয়া হয়েছে। জড়িত অন্যদের খোঁজা হচ্ছে।

মন্তব্য