kalerkantho

শনিবার । ২৫ মে ২০১৯। ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ১৯ রমজান ১৪৪০

কালিয়াকৈর হানাদারমুক্ত দিবস আজ

কালিয়াকৈর (গাজীপুর) প্রতিনিধি   

১৪ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পাকিস্তানি শোষণ ও বঞ্চনার হাত থেকে দেশকে, দেশের মানুষকে মুক্ত করার জন্য ১৯৭১ সালে এ দেশের মুক্তিপাগল মানুষ ঝাঁপিয়ে পড়েছিল স্বাধীনতাযুদ্ধে। সারা দেশের মতো গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার অসংখ্য সাহসী যুবক ও তরুণ ওই মুক্তি সংগ্রামে অংশ নেয়। তাদের মহান আত্মত্যাগের জন্যই দেশের স্বাধীনতা এসেছে। আজ থেকে ৪৬ বছর আগে ১৯৭১ সালের ১৪ ডিসেম্বর এসব যুক্তিযোদ্ধাদের ভয়ে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনী কালিয়াকৈর থেকে পালিয়ে যেতে বাধ্য হয়।

১৯৭১ সালের নভেম্বর মাসের রমজানের ঈদের রাতে কালিয়াকৈরের লতিফপুর সেতুর কাছে মুক্তিযোদ্ধাদের সঙ্গে পাকিস্তানি বাহিনীর সম্মুখযুদ্ধ হয়। এই যুদ্ধের ফলে পাকিস্তানি বাহিনী উপজেলার শ্রীফলতলী গ্রামটি জ্বালিয়ে দেয়। এদিকে উপজেলার সফিপুর বাজারের পূর্বপাশে সশস্ত্র হানাদারদের একটি দলকে বাধা দিলে তারা একটি জিপ গাড়ি রেখে পালিয়ে যায়। পরে রাতের বেলায় হানাদার বাহিনী সফিপুর বাজার আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দেয়। ১৪ ডিসেম্বর উপজেলার বংশী নদীর সেতুর ওপর মুক্তিযোদ্ধাদের সঙ্গে পাকিস্তানি বাহিনীর যুদ্ধ বাধে। এ সময় মুক্তিযোদ্ধারা তিনদিক থেকে আক্রমণ করলে তারা পালিয়ে যেতে বাধ্য হয়। ওই যুদ্ধে বিজয়ের মাধ্যমেই হানাদারমুক্ত হয় কালিয়াকৈর।

মন্তব্য