kalerkantho

শনিবার । ২৫ মে ২০১৯। ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ১৯ রমজান ১৪৪০

যুবক ও কিশোর খুন

প্রিয় দেশ ডেস্ক   

২৩ মে, ২০১৫ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



গাইবান্ধার সাদুল্যাপুর উপজেলায় দুর্বৃত্তদের অস্ত্রের আঘাতে এক কিশোর নিহত হয়েছেন। খাগড়াছড়ির লক্ষ্মীছড়িতে এক যুবককে হত্যা করে মোটরসাইকেল নিয়ে গেছে দুর্বৃত্তরা।

গাইবান্ধা : সাদুল্যাপুরের ছোট দৌলতপুর গ্রামে নিহতের নাম সুশীল চন্দ্র মহন্ত (১৭)। সুশীল দৌলতপুর গ্রামের নারায়ণ চন্দ্র মহন্তের ছেলে। এ ঘটনায় গুরুতর আহত হান্নান ওরফে বিপুলকে (২০) রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বিপুল একই গ্রামের এখলাছ উদ্দিনের ছেলে। পুলিশ ও স্থানীয় লোকজন জানায়, বৃহস্পতিবার রাত ৪টার দিকে সাত-আটজন দুর্বৃত্ত এখলাছ উদ্দিনের বাড়িতে হামলা চালায়। এ সময় বাড়ির ও আশপাশের লোকজন ডাকাত ভেবে চিৎকার করতে থাকে। একপর্যায়ে সুশীল চন্দ্র ও বিপুল দুর্বৃত্তদের বাধা দিলে হামলাকারীরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে তাদের আঘাত করে। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যায় সুশীল; গুরুতর আহত হন বিপুল। সুশীলের পরিবারের অভিযোগ, জমি নিয়ে এখলাছ উদ্দিনের সঙ্গে একই গ্রামের প্রতিপক্ষের বিরোধ চলছে। ওই প্রতিপক্ষের ভাড়াটে দুর্বৃত্তরা পরিকল্পিতভাবে এ হত্যাকাণ্ড ঘটায়। ধাপেরহাট পুলিশ তদন্তকেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত এসআই জালাল উদ্দিন জানান, নিহতের শরীরে একাধিক আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

খাগড়াছড়ি : শুক্রবার লক্ষ্মীছড়ি-বর্মাছড়ির সড়কের হাজাছড়ি এলাকায় নিহতের নাম মংছিলা মারমা (২৩)। তিনি উপজেলার শিলাছড়ি পাড়ার অংথৈচাই মারমার ছেলে। দুর্বৃত্তরা মংছিলার মোটরসাইকেলটি নিয়ে গেছে। এলাকাবাসী জানিয়েছে, মংছিলা সকাল ৮টার দিকে এক যাত্রী নিয়ে বর্মাছড়ি যাচ্ছিলেন। স্থানীয় বাসিন্দারা হাজাছড়া এলাকায় রাস্তার পাশে রক্তাক্ত মংছিলাকে পড়ে থাকতে দেখে হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে চিকিৎসক তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। লক্ষ্মীছড়ি হাসপাতালের মেডিক্যাল অফিসার মো. ওমর ফারুক জানান, হাসপাতালে আনার আগেই মারা যান মংছিলা। তাঁর মাথায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। লক্ষ্মীছড়ি থানার ওসি মো. মিজানুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।

 

মন্তব্য