kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২০ জুন ২০১৯। ৬ আষাঢ় ১৪২৬। ১৬ শাওয়াল ১৪৪০

আড্ডা দিতে মানা করায়

সিলেটে ছাত্রলীগের হামলায় বাসার কেয়ারটেকার নিহত

সিলেট অফিস   

১৯ মে, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সিলেট নগরে ছাত্রলীগের হামলায় জাতীয় পার্টির সাবেক এমপি সেলিম উদ্দিনের বাসার কেয়ারটেকার নিহত হয়েছেন। তাঁর নাম সুমন দাস (২৩)। বাসার সামনে আড্ডা দিতে নিষেধ করায় তাঁর ওপর হামলা হয়। গত বৃহস্পতিবার রাতে বেদম মারধর করা হলে চিকিৎসাধীন থাকা অবস্থায় শুক্রবার গভীর রাতে তাঁর মৃত্যু হয়। নিহত সুমন সুনামগঞ্জ জেলার জামালগঞ্জ উপজেলার জালালপুরের সুশান্ত দাসের ছেলে। 

জানা গেছে, জাতীয় পার্টির নেতা ও সিলেট-৫ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য সেলিম উদ্দিনের মালিকানাধীন নগরের শিবগঞ্জ এলাকার দেবপাড়ায় সেনপাড়া-৪১ নম্বর বাসার কেয়ারটেকারের দায়িত্বে ছিলেন সুমন। বাসার সামনে দীর্ঘদিন ধরে আওয়ামী লীগ নেতা রঞ্জিত সরকারের অনুসারী ছাত্রলীগের ‘রঞ্জিত গ্রুপের নাজমুলের অনুসারীরা’ নিয়মিত আড্ডা দিত। গত বৃহস্পতিবার রাতে কেয়ারটেকার সুমন তাদের বাসার সামনে থেকে সরে যাওয়ার অনুরোধ জানিয়ে বলেন, ‘স্যার সিলেটে আসবেন। আপনারা এখান থেকে সরে যান।’ এই কথায় ক্ষিপ্ত হয়ে নাজমুলের অনুসারীরা বাসার ভেতর ঢুকে সুমনকে বেধড়ক মারধর করে। মারাত্মক আহত অবস্থায় তাঁকে উদ্ধার করে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। শুক্রবার রাত ১টার দিকে তাঁর মৃত্যু হয়।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সিলেট মহানগর পুলিশের শাহপরাণ থাকার ওসি আকতার হোসেন কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘ঘটনার পর পুলিশের অভিযানে দুজনকে আটক করা হয়েছে। তবে এই মুহূর্তে নাম বলা যাচ্ছে না।’ এ ঘটনায় নিহতের মামা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়েরর প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।

 

 

মন্তব্য