kalerkantho

বুধবার । ২২ মে ২০১৯। ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ১৬ রমজান ১৪৪০

ছয় উপায়ে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ

২১ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ছয় উপায়ে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ

উচ্চ রক্তচাপ বা হাইপারটেনশন এমন একটি অবস্থা যখন রক্তনালির বেষ্টনীর বিরুদ্ধে রক্তের চাপ বেড়ে যায়। ফলে হৃদযন্ত্র ও রক্তনালিকে বাড়তি কাজ করতে হয়। এতে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে যেতে পারে। তাই এ সমস্যা নিয়ন্ত্রণে বাড়তি সতর্কতা প্রয়োজন। সবচেয়ে ভালো হয় প্রাকৃতিক উপায় অবলম্বন। জেনে নিন রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখার কার্যকর কিছু প্রাকৃতিক উপায়।

ওজন কমান : রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে ওজন কমাতেই হবে। নিজের কোমরের মাপ খেয়াল রাখুন। কোমর অঞ্চলের ওজন বেশি হলে তা রক্তচাপ বাড়ায়। পুরুষদের ক্ষেত্রে ৪০ ইঞ্চির বেশি ও নারীদের ক্ষেত্রে ৩৫ ইঞ্চির বেশি কোমর হলে হলে তা উচ্চ রক্তচাপ বাড়ায়।

নিয়মিত ব্যায়াম : উচ্চ রক্তচাপ কমাতে প্রতিদিন ১৫০ মিনিট ব্যায়াম করা প্রয়োজন। হাঁটা, জগিং, সাইক্লিং, সাঁতার ও নাচের মতো ব্যায়ামগুলো রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে।

স্বাস্থ্যসম্মত খাবার : খাদ্যে প্রচুর তাজা ফল ও সবজি যোগ করুন। পটাসিয়ামসমৃদ্ধ খাবার অন্তর্ভুক্ত করুন। কারণ এটি রক্তচাপের ওপর সোডিয়ামের প্রভাবকে কমাতে সহায়তা করে। পটাসিয়ামসমৃদ্ধ খাবার হলো কলা, পালংশাক, মাশরুম, শসা, কমলালেবু ও মিষ্টি আলু।

ধূমপান নয় : ধূমপান শেষ করার পরও এর প্রভাবে বেশ কিছুক্ষণ রক্তচাপ বাড়ে। শরীরের রক্তচাপের স্বাভাবিক মাত্রা পুনরুদ্ধার করতে ধূমপান ছাড়তে হবে।

ক্যাফেইন : রক্তচাপের মাত্রা বাড়াতে পারে ক্যাফেইন। কফি, চা, চকোলেট, হালকা পানীয়তে ক্যাফেইন পাওয়া যায়। তাই রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে ক্যাফেইনজাতীয় খাবার খাওয়া সীমিত রাখুন।

কম চাপ : মানসিক চাপ উচ্চ রক্তচাপের মাত্রা বাড়ানোর অন্যতম প্রধান কারণ। মানসিক চাপের (ট্রেস) প্রতি আপনার মনোভাব পরিবর্তন করে কম চাপ নিন। আর কম চাপ নিয়ে রক্তচাপ থাকবে নিয়ন্ত্রণে। হৃদযন্ত্রের ক্রিয়াও থাকবে স্বাভাবিক।

এনডিটিভি অবলম্বনে শরীফ উল্লাহ

মন্তব্য