kalerkantho

সোমবার । ২৪ জুন ২০১৯। ১০ আষাঢ় ১৪২৬। ২০ শাওয়াল ১৪৪০

নরসিংদীতে সংঘর্ষ হতাহতের ঘটনায় হত্যা মামলা হয়নি

নরসিংদী প্রতিনিধি   

১৯ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



নরসিংদীর রায়পুরার চরাঞ্চলে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে হামলা-সংঘর্ষে তিনজন নিহত ও অর্ধশতাধিক আহত হওয়ার ঘটনার দুই দিন পরও মামলা হয়নি। তদন্তে বেরিয়ে আসা বাঁশগাড়ীর সংঘর্ষের হোতা জাকির হোসেন ও কবির সরকার এবং নিলক্ষার সংঘর্ষের হোতা ছমেদ আলী ও শহিদ মেম্বারকে আটক করতে পারেনি পুলিশ। গতকাল রবিবারও বাঁশগাড়ী ও নিলক্ষা ইউনিয়নজুড়ে ছিল থমথমে পরিবেশ।

পুলিশের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, শুক্রবার সকালে রায়পুরা উপজেলার দুর্গম চরাঞ্চল বাঁশগাড়ীতে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে চলমান বিরোধের জের ধরে প্রয়াত চেয়ারম্যান সিরাজুল হকের অনুসারী কবির সরকারের নেতৃত্বে প্রতিপক্ষ সাবেক চেয়ারম্যান প্রয়াত হাফিজুর রহমান শাহেদ সরকারের অনুসারী জাকির হোসেনের সমর্থকদের ওপর হামলা চালানোর ঘটনা ঘটে। এতে তোফায়েল হোসেন নামে একজন গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হন।

এদিকে ওই দিনই দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত নিলক্ষা ইউনিয়নেও বর্তমান চেয়ারম্যান তাজুল ইসলামের অনুসারী ছমেদ আলী দলবল নিয়ে প্রতিপক্ষ সাবেক চেয়ারম্যান আবদুল হকের অনুসারী সহী মেম্বারের সমর্থকদের ওপর হামলা চালান। এতে দুই পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়লে সোহরাব হোসেন ও স্বপন মিয়া নামে দুজন গুলিতে নিহত হন।

মন্তব্য