kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৫ জুন ২০১৯। ১১ আষাঢ় ১৪২৬। ২২ শাওয়াল ১৪৪০

ডেসটিনি চেয়ারম্যানের তিন বছরের কারাদণ্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৫ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



দুর্নীতি দমন কমিশনে সম্পদের হিসাব বিবরণী দাখিল না করার অপরাধে ডেসটিনি  লিমিটেড-২০০০-এর চেয়ারম্যান মোহাম্মদ হোসেনকে তিন বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। গতকাল বুধবার ঢাকার বিশেষ জজ আদালত ৬-এর বিচারক ড. শেখ গোলাম মাহবুব এই রায় দেন।

ডেসটিনির কোনো কর্মকর্তার বিরুদ্ধে এটিই প্রথম কোনো মামলার রায় ঘোষণা করা হলো।

তিন বছরের কারাদণ্ডের পাশাপাশি মোহাম্মদ হোসেনকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। জরিমানার টাকা পরিশোধ না করলে তাঁকে আরো তিন মাসের কারাদণ্ড ভোগ করতে হবে বলে রায়ে বলা হয়েছে।

রায়ের আগে আসামিকে কারাগার থেকে আদালতে আনা হয়। রায় শেষে তাঁকে সাজা পরোয়ানাসহ কারাগারে পাঠানো হয়। তবে এই মামলায় যত দিন মোহাম্মদ হোসেন হাজতে ছিলেন তত দিন সাজা খাটতে হবে না বলে রায়ে উল্লেখ করা হয়েছে।

মামলার বিবরণে জানা যায়, ডেসটিনি লিমিটেড-২০০০-এর বিরুদ্ধে দায়ের করা অন্য দুটি মামলায় কারাগারে থাকা অবস্থায় ২০১৬ সালের ১৬ জুন মোহাম্মদ হোসেনকে তাঁর সম্পদের হিসাব দাখিল করতে নির্দেশ দেয় দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। পরে ২০ জুন মোহম্মদ হোসেনকে সাত কার্যদিবসের মধ্যে এই হিসাব দিতে বলা হয়। কিন্তু ওই সময়ের মধ্যে হিসাব বিবরণী দাখিল না করে আবার সময় চাইলে দুদক আরো সাত কার্যদিবস সময় দেয়। এর পরও হিসাব বিবরণী দাখিল না করায় একই বছরের ৮ সেপ্টেম্বর দুদকের সহকারী পরিচালক মো. সালাউদ্দিন রমনা থানায় মোহাম্মদ হোসেনের বিরুদ্ধে মামলা করেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা