kalerkantho

রবিবার। ১৬ জুন ২০১৯। ২ আষাঢ় ১৪২৬। ১২ শাওয়াল ১৪৪০

শিল্পকলা একাডেমি চিত্রাঙ্কন

‘এই আমার জীবন’ শীর্ষক ২৬০০ ছবি আঁকল শিশুরা

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২২ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



‘এই আমার জীবন’ শীর্ষক ২৬০০ ছবি আঁকল শিশুরা

জাপানে অনুষ্ঠেয় ‘মিতস্যুবিসি এশীয় শিশুদের সচিত্র দিনলিপি (এনিক্কি ফেস্টা)’ শীর্ষক উৎসবে চিত্রকলা প্রতিযোগিতার জন্য বাংলাদেশ থেকে দুই হাজার ৬০০ ছবি জমা পড়েছে। ‘এই আমার জীবন’ বিষয়ে দেশের ৬৩টি জেলার শিশুশিল্পীরা ছবিগুলো এঁকেছে। প্রতিযোগিতার জন্য সারা দেশ থেকে মোট সাড়ে ৫০০ শিশুশিল্পী অংশ নিয়েছে।  

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির উদ্যোগে দেশব্যাপী শিশুদের এই ছবি আঁকার প্রতিযোগিতার জন্য ছবি আহ্বান করলে এই ছবি জমা পড়ে। ৬৩টি জেলা শিল্পকলা একাডেমির শাখা অফিসের মাধ্যমে এই ছবিগুলো সংগ্রহ করা হয়।

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির চারুকলা বিভাগের পরিচালক শিল্পী মনিরুজ্জামান জানান, জাপানের মিতস্যুবিসির এই উৎসব ও প্রতিযোগিতাটি বিশ্বে খুবই মর্যাদাপূর্ণ একটি আয়োজন। বাংলাদেশের অংশগ্রহণকারী শিশুশিল্পীদের ছবিগুলো নিয়ে একাডেমি প্রদর্শনীও করবে। ঢাকায় আগামী মার্চ মাসের তৃতীয় সপ্তাহে শিশুদের বাছাই চিত্রকর্ম নিয়ে ১০ দিনব্যাপী এই বিশেষ প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত হবে। প্রতিযোগিতার বাছাই ছবি জাপানে পাঠানো হবে। ছবি বাছাইসহ যাবতীয় প্রস্তুতির কাজ এগিয়ে চলছে।

শিল্পকলা একাডেমি থেকে জানানো হয়, এশিয়ার দেশগুলোর শিশুদের আঁকা চিত্রকর্ম জাপানের দর্শকদের কাছে উপস্থাপন করার উদ্দেশ্যে ২০১৭-১৮ অর্থবছরের এই উৎসব জাপানে অনুষ্ঠিত হবে। উৎসবে প্রত্যেক অংশগ্রহণকারী দেশের একজন করে শিশুশিল্পীকে গ্র্যান্ড প্রিক্স প্রদান করা হবে। গ্র্যান্ড প্রিক্স পুরস্কারপ্রাপ্ত শিশুশিল্পী জাপান সফরের সুযোগ পাবে। এ ছাড়া প্রত্যেক দেশের আরো সাতজন শিশুশিল্পীকে সাতটি করে পুরস্কার প্রদান করা হবে।

শিশুশিল্পীরা ছবি এঁকে তার রোজকার ডায়েরি (সচিত্র দিনলিপি) লিপিবদ্ধ করে ছবির সঙ্গে জমা দিয়েছে। প্রতিযোগিতায় ৬ থেকে ১২ বছর বয়সী শিশুরা অংশ নেয়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা