kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১ ডিসেম্বর ২০২২ । ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ।  ৬ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

সংলাপ শেষে মির্জা ফখরুল

ত্রয়োদশ সংশোধনীর আলোকে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের রুপরেখা বিএনপির

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৬ অক্টোবর, ২০২২ ১৪:১১ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



ত্রয়োদশ সংশোধনীর আলোকে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের রুপরেখা বিএনপির

বাতিল হওয়া এয়োদশ সংশোধনীর আলোকেই বিএনপি ‘সময়মতো’ নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের রুপরেখা দেবে বলে জানিয়েছেন মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। গুলশানে চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে সকালে ন্যাশনাল পিপলস পার্টি(এনপিপি) সাথে দ্বিতীয় দফা সংলাপের পর সংবাদ ব্রিফিংয়ে বিএনপি মহাসচিব এই কথা জানান।

তিনি বলেন, ‘তত্ত্বাবধায়ক সরকারের রুপরেখা আপনারা সময়মত জানবেন। যুগপত আন্দোলন শুরু করলে আপনারা জানতে পারবেন।

বিজ্ঞাপন

আমাদের রুপরেখায় থাকবে সংবিধানের ৫৮(খ), (গ).. যেটা সংবিধানের (দ্বাদশ সংশোধনী) ছিলো। তারই আলোকে এই রুপরেখা হবে। ’

ষষ্ঠ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপি নিরঙ্কুশ আসনে বিজয়ী হয়ে ১৯৯৬ সালের ২৭ মার্চ নির্বাচনকালীন নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা প্রবর্তনে এয়োদশ সংশোধনী পাস করে। ২০০৮ সালে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর ২০১১ সালে সুপ্রিম কোর্টের রায়ের পরিপ্রক্ষিতে পঞ্চদশ সংশোধনীর মাধ্যমে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের বিধান বাতিল করে।

বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১১ টায় ২০ দলীয় জোটের অন্যতম শরিক ন্যাশনাল পিপলস পার্টির চেয়ারম্যান ফরিদুজ্জামান ফরহাদের নেতৃত্বে ১০ সদস্যের প্রতিনিধি দলের সঙ্গে বৈঠকে বসেন মির্জা ফখরুল। প্রতিনিধি দলের অন্যরা হলেন, মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তফা, আহম জহির হোসেন হাকিম, নবী চৌধুরী, শরিফ মনির হোসেন,বেলাল আহমেদ, ফরিদউদ্দিন, ফখরুজ্জামান,হাসিবুর রহমান ও আবুল কালাম আজাদ।

এর আগে সকাল ১০টায় বাংলাদেশ লেবার পার্টির সাথে বৈঠক করেন বিএনপি মহাসচিব। লেবার পার্টির চেয়ারম্যান চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান ইরান ১০ সদস্যের প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন। প্রতিনিধি দলের অন্য সদস্যরা হলেন ফারুক রহমান, এসএম ইউসুফ আলী, আমিনুল ইসলাম রাজু, আলাউদ্দিন আলী, জহিরুল হক, আমিনুল ইসলাম, রামকৃষ্ণ সাহা, হুমায়ুন কবির ও খন্দকার মিরাজুল ইসলাম। এই দুই বৈঠকে বিএনপি মহাসচিবের সঙ্গে দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠক শেষে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আমরা আজকে বাংলাদেশ লেবার পার্টি ও ন্যাশনাল পিপলস পার্টির যুগপত আন্দোলনের দাবিনামা নিয়ে আলোচনা করেছি। আমরা যে দাবিগুলোর খসড়া নিয়ে আলোচনা করেছি, এর ভেতরে প্রধান দাবিগুলোর মধ্যে অবৈধ ফ্যাসিস্ট  সরকারের পদত্যাগ, একটা নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকার গঠন, সংসদ বাতিল, নতুন নির্বাচন কমিশনের অধিনে একটা গ্রহনযোগ্য নির্বাচন, দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াসহ নেতা-কর্মীদের মুক্তি এসব দাবির বিষয়ে আমরা একমত হয়েছি। অন্যান্য দলগুলোর সাথে ধারাবাহিক আলোচনা শেষে দাবিসমূহ চূড়ান্ত করে আমরা যুগপত আন্দোলনে এগিয়ে যাবো। ’

দ্বিতীয় দফা সংলাপে এরইমধ্যে জাতীয় পার্টি (কাজী জাফর), এলডিপি ও কল্যাণ পার্টির সঙ্গে বৈঠক করেছেন বিএনপি মহাসচিব।



সাতদিনের সেরা