kalerkantho

শনিবার । ২০ আগস্ট ২০২২ । ৫ ভাদ্র ১৪২৯ । ২১ মহররম ১৪৪৪

ঢাবির সিদ্ধান্ত অবৈধ, ১১০ জন ভর্তি করতে পারবে গণস্বাস্থ্য মেডিক্যাল

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৮ জুন, ২০২২ ২০:৫৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ঢাবির সিদ্ধান্ত অবৈধ, ১১০ জন ভর্তি করতে পারবে গণস্বাস্থ্য মেডিক্যাল

ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর প্রতিষ্ঠা করা গণস্বাস্থ্য সমাজভিত্তিক মেডিক্যাল কলেজে শিক্ষার্থী ভর্তি ১১০ জন থেকে কমিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের দেওয়া সিদ্ধান্ত অবৈধ ঘোষণা করেছেন হাইকের্ট। এসংক্রান্ত দুটি চিঠির বৈধতা প্রশ্নে জারি করা রুল যথাযথ ঘোষণা করে মঙ্গলবার এ রায় দেন বিচারপতি কাশেফা হোসেন ও বিচারপতি কাজী জিনাত হকের হাইকোর্ট বেঞ্চ।

১৯৯৮ সালে ঢাকার সাভারে গণস্বাস্থ্য সমাজভিত্তিক মেডিক্যাল কলেজ প্রতিষ্ঠা করেন ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী। ২০২০ সালে এটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত হয়।

বিজ্ঞাপন

এর আগে কলেজটি গণবিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত ছিল।

২০০৩ সালে কলেজটি ৮০ জন শিক্ষার্থী ভর্তির অনুমতি পায়। পরে ২০১০ সালে ১১০ জন শিক্ষার্থী ভর্তির অনুমতি দেওয়া হয়। এর পর থেকে প্রতিবছর ১১০ জন করে শিক্ষার্থী ভর্তি করে আসছিল কলেজটি। ২০২০ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত হওয়ার পর সে বছরের ১৪ জানুয়ারি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ চিঠি দিয়ে জানায়, কলেজটিতে ৫০ জনের বেশি শিক্ষার্থী ভর্তি করা যাবে না। এ সিদ্ধান্ত বাতিলে আপিল করা হলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ১০ জন বাড়িয়ে ৬০ জন শিক্ষার্থী ভর্তির অনুমতি দেয়।  
পরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের দুটি সিদ্ধান্তই চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট করেন গণস্বাস্থ্য সমাজভিত্তিক মেডিক্যাল কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ ডা. মুহিব উল্লাহ খন্দকার। সে রিটের প্রাথমিক শুনানির পর গত বছর ২৪ নভেম্বর হাইকোর্ট সিদ্ধান্ত দুটির বৈধতা প্রশ্নে রুল জারি করেন।

গণস্বাস্থ্য সমাজভিত্তিক মেডিক্যাল কলেজে শিক্ষার্থী ভর্তি ১১০ জন থেকে কমিয়ে প্রথমে ৫০ জন ও পরে ১০ জন বাড়িয়ে শিক্ষার্থী ভর্তি ৬০ জনে সীমিত করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত কেন বেআইনি ও আইনগত কর্তৃত্ববহির্ভূত ঘোষণা করা হবে না, জানতে চাওয়া হয় রুলে। শিক্ষাসচিব, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে রুলের জবাব দিতে বলা হয়। সে রুলে শুনানির পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সিদ্ধান্ত অবৈধ ঘোষণা করলেন হাইকোর্ট।

আদালতে রিটকারী পক্ষে রুলের শুনানি করেন আইনজীবী এ কে এম ফখরুল ইসলাম। রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন। সঙ্গে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল নূর-উস-সাদিক।

এ রায়ের ফলে গণস্বাস্থ্য সমাজভিত্তিক মেডিক্যাল কলেজ আগের মতোই ১১০ জন শিক্ষার্থী ভর্তি করতে পারবে বলে কালের কণ্ঠকে জানান আইনজীবী ফখরুল ইসলাম।



সাতদিনের সেরা