kalerkantho

শনিবার । ২০ আগস্ট ২০২২ । ৫ ভাদ্র ১৪২৯ । ২১ মহররম ১৪৪৪

যারা পদ্মা সেতুর নাট-বল্টু খুলেছে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে : সিআইডি

অনলাইন ডেস্ক   

২৭ জুন, ২০২২ ১৪:২৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



যারা পদ্মা সেতুর নাট-বল্টু খুলেছে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে : সিআইডি

পদ্মা সেতুর রেলিংয়ের নাট খুলে ভাইরাল হওয়া যুবক বায়েজিদ তালহা।

যারা পদ্মা সেতুর নাট-বল্টু খুলেছে তাদের আইনের আওতায় আনা হবে বলে জানিয়েছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। আজ সোমবার (২৭ জুন) দুপুরে মালিবাগ সিআইডি কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান সিআইডির সাইবার পুলিশের বিশেষ পুলিশ সুপার মো. রেজাউল মাসুদ।  

পুলিশ সুপার মো. রেজাউল মাসুদ বলেন, পদ্মা সেতুর রেলিংয়ের নাট-বল্টু কোনো যন্ত্রাংশ ছাড়া শুধুমাত্র হাত দিয়েই খোলা সম্ভব নয়। তিনি বলেন, এ বিষয়ে আমরা সেতু কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করে জেনেছি, এত বড় একটা স্থাপনার নাট-বল্টু শুধু হাত দিয়ে খোলা যাবে না।

বিজ্ঞাপন

এতে বোঝা যায় নাট-বল্টু হাতে দিয়ে খোলা হয়নি, নাট-বল্টু খোলার জন্য সরঞ্জাম ব্যবহার করা হয়েছে।

সিআইডির এই কর্মকর্তা বলেন, পদ্মা সেতুর রেলিংয়ের নাট খুলে টিকটক ভিডিও তৈরি করে ভাইরাল হওয়া ৩০ বছর বয়সী যুবক বায়েজিদ তালহাকে বিকেলে রাজধানীর শান্তিনগর থেকে আটক করা হয়েছে। তার বাড়ি পটুয়াখালীতে। তার বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা করা হয়েছে। মামলাটির তদন্ত করবে সিআইডি। এছাড়াও যারা পদ্মা সেতুর নাট-বল্টু খুলেছে তাদের আইনের আওতায় আনা হবে বলে জানান তিনি।  

পুলিশ সুপার রেজাউল মাসুদ বলেন, পদ্মা সেতুতে দাঁড়ানো বা ছবি তোলা নিষিদ্ধ। তারপরও প্রথম দিন হিসেবে তা শিথিল রাখা হয়। এই সুযোগে বায়েজিদ তালহা নামের এক যুবক অসৎ উদ্দেশ্যে পদ্মা সেতুর নাট-বল্টু খুলে নেওয়ার ভিডিও করে টিকটকে ভাইরাল হয়। মুহূর্তেই তার ভিডিও টিকটকসহ অন্যান্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে যায়। বিভিন্ন অনলাইন নিউজ পোর্টালেও রিপোর্ট হয়।

সিআইডির এই কর্মকর্তা বলেন, ভিডিওতে দেখা যায়, পদ্মা সেতু নিয়ে যুবকটি তুচ্ছ তাচ্ছিল্য এবং ব্যাঙ্গাত্মক অঙ্গভঙ্গি করে হাসাহাসি করছে। ভাইরাল ভিডিওতে দেখা গেছে, পদ্মা সেতুর রেলিংয়ের দুটি নাট খুলে, খোলা নাট হাতে নিয়ে তিনি বলেন, এই হলো পদ্মা সেতু আমাদের...পদ্মা সেতু। দেখো আমাদের হাজার হাজার কোটি টাকার পদ্মা সেতু। এই নাট খুইলা এহন আমার হাতে। এ সময় পাশে থেকে আরেক ব্যক্তি বলেন, ভাইরাল কইরা ফালায়েন না।

সংবাদ সম্মেলনে সিআইডির কর্মকর্তা বলেন, ‘সামাজিক মাধ্যমে নাটবল্টুর ভিডিওটি ছড়িয়ে তিনি মূলত পদ্মা সেতু নিয়ে তুচ্ছ–তাচ্ছিল্য করেছেন। এটা অন্তর্ঘাতমূলক অপরাধ। তিনি সাধারণ মানুষের অনুভূতিতে আঘাত দিয়েছেন এবং রাষ্ট্রের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করেছেন। ’

 



সাতদিনের সেরা