kalerkantho

শনিবার । ২০ আগস্ট ২০২২ । ৫ ভাদ্র ১৪২৯ । ২১ মহররম ১৪৪৪

বাজুস উইমেনস অ্যাওয়ার্ড পেলেন তিন নারী উদ্যোক্তা

অনলাইন ডেস্ক   

৬ মার্চ, ২০২২ ২২:০১ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বাজুস উইমেনস অ্যাওয়ার্ড পেলেন তিন নারী উদ্যোক্তা

আন্তর্জাতিক নারী দিবস-২০২২ উদযাপন উপলক্ষে বাংলাদেশ জুয়েলার্স অ্যাসোসিয়েশন (বাজুস) জুয়েলারি শিল্পে অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে তিন নারী উদ্যোক্তাকে সম্মাননা দিয়েছে। সংগঠনটি প্রথমবারের মতো বাজুস উইমেন অ্যাওয়ার্ড-২০২২ প্রদান করেছে।  

অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন দি আমিন জুয়েলার্সের কর্ণধার কাজী নাজনীন ইসলাম নিপা, বাংলাদেশ পার্ল হাউসের কর্ণধার কৃঞ্চা কর্মকার ও পালস প্যারাডাইসের কর্ণধার তাহমিনা এনায়েত।  

রবিবার সন্ধ্যায় রাজধানীর বসুন্ধরা সিটি শপিং কমপ্লেক্সের বাজুস কার্যালয়ে আয়োজিত বর্ণিল অনুষ্ঠানে এই উইমেন অ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হয়।

বিজ্ঞাপন

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বাজুস প্রেসিডেন্ট ও বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সায়েম সোবহান আনভীর। বিশেষ অতিথি ছিলেন বসুন্ধরা গ্রুপের পরিচালক সাবরিনা সোবহান। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাজুস স্ট্যান্ডিং কমিটি অন উইমেন অ্যাফেয়ার্সের চেয়ারম্যান ফরিদা হোসেন। মূল বক্তব্য উপস্থাপন করেন বাজুস স্ট্যান্ডিং কমিটি অন উইমেন অ্যাফেয়ার্সের সদস্য সুলতানা রাজিয়া ও তাসনিম নাজ।  

আলোচনাসভায় বক্তারা বলেন, স্বাধীনতার এই মাসে জুয়েলারি শিল্পে নারী-পুরুষের সমতা নিশ্চিত করতে চাই। এই খাতে নারী উদ্যোক্তা এবং নারী কারিগরের সংখ্যাও বাড়াতে হবে। আমরা চাই জুয়েলারি শিল্পে নারীদের অংশগ্রহণ বাড়ুক। উদ্যোক্তা, কারিগরি শিল্পী এবং ওয়ার্কফোর্স তৈরি হোক। এই খাতে উদ্যোক্তা বাড়াতে নারীদের প্রশিক্ষণ দিতে হবে। এ জন্য আমাদের পলিসি তৈরি করতে হবে।

তারা আরো বলেন, এই খাতে সমতা নেই। পর্যায়ক্রমে এই সমতা বাস্তবায়ন করতে হবে। নারীদের আগ্রহী করে তুলতে হবে। নারীদের জন্য নিরাপদ কর্মপরিবেশ তৈরি করতে হবে। নারীদের এই খাতে আগ্রহী করে তুলতে হবে।
 
অনুষ্ঠান শেষে নারী দিবস উপলক্ষে সাবরিনা সোবহান আনন্দঘন পরিবেশে নারী উদ্যোক্তাদের সাথে নিয়ে কেক কাটেন।



সাতদিনের সেরা