kalerkantho

বুধবার । ৭ আশ্বিন ১৪২৮। ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১৪ সফর ১৪৪৩

মানুষ মানুষের জন্য

জুয়েলকে বাঁচাতে এগিয়ে আসুন

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:১২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



জুয়েলকে বাঁচাতে এগিয়ে আসুন

মো. জুয়েল রানা

মো. জুয়েল রানা (২৫) মোহাম্মদপুর কেন্দ্রীয় কলেজের ইংরেজি বিভাগের (২০১৪-২০১৫) শিক্ষাবর্ষের একজন মেধাবী ছাত্র। এক বছর আগে কিডনি রোগে আক্রান্ত হন জুয়েল। বর্তমানে তার দুটি কিডনিই নষ্ট হয়ে গেছে।

জুয়েল তাড়াশ উপজেলার দক্ষিণপাড়ার বাসিন্দা, তার বাবা মো. মন্টু খন্দকার (৫২)। অনেক চেষ্টা আর চিকিৎসায়ও ছেলেকে সুস্থ করতে না পারায় তিনি হতাশ। এ ছাড়া যাবতীয় চিকিৎসা ব্যয় বহন করে এখন নিঃস্ব ও অসহায় হয়ে পড়েছেন তিনি।

দুটি কিডনি নষ্ট হওয়াতে তার বেঁচে থাকা অনেকটা অনিশ্চিত হয়ে পড়ে। কিন্তু এখন আবার আশার আলো দেখছে জুয়েলের পরিবার। জুয়েলের স্ত্রী মো. শাহনাজ পারভীন (২৪) তার একটি কিডনি স্বামীর জন্য দিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। ডাক্তারি পরীক্ষায় দুজনের কিডনি ম্যাচিং হওয়ায় কিডনি দিতে কোনো বাধা নেই। কিন্তু টাকার জন্য সেটিও করা সম্ভব হচ্ছে না। এই দম্পতির বাইশ মাসের একটি কন্যাশিশুও রয়েছে। বর্তমানে জুয়েলকে ঢাকার CKD Urology Hospital-এ চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

জুয়েলের পরিবার জানিয়েছে, কিডনি প্রতিস্থাপন করতে আনুষঙ্গিক চিকিৎসা ব্যয়সহ ১২-১৩ লাখ টাকার প্রয়োজন। এই ব্যয় বহন করতে দেশবাসীর দ্বরস্থ হয়েছে গোটা পরিবার।

জুয়েলকে সাহায্য পাঠানোর ঠিকানা : মো. জুয়েল রানা, ডাচ্-বাংলা ব্যাংক,অ্যাকাউন্ট নম্বর : ১৮৩.১৫৭.১৫০৪ রাউটিং নম্বর : ০৯০২৬০৯২৬ দক্ষিণাক্ষণ ব্রাঞ্চ। জুয়েলের বিকাশ পার্সোনাল নম্বর-০১৯৪১৯০১৪১৮।



সাতদিনের সেরা