kalerkantho

সোমবার  । ১২ আশ্বিন ১৪২৮। ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১৯ সফর ১৪৪৩

পাইকগাছা ইউএনওকে ইউপি নির্বাচন থেকে বিরত রাখার আবেদন

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১৯:৩৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পাইকগাছা ইউএনওকে ইউপি নির্বাচন থেকে বিরত রাখার আবেদন

খুলনা জেলার পাইকগাছা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) এ বি এম খালিদ হোসেন সিদ্দিকীকে আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন থেকে বিরত রাখার আবেদন জানিয়েছে একাধিক প্রার্থী। আজ বুধবার নির্বাচন কমিশন সচিব বরাবর করা আবেদনে তারা ইউএনও’র বিরুদ্ধে পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ উত্থাপন করেছেন।

পাইকগাছা উপজেলার সোলাদানা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা মার্কার প্রার্থী আব্দুল মান্নান গাজী এক অভিযোগে বলেছেন, উপজেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক এবং খুন ও অস্ত্র মামলার আসামি এনামুল হক বিগত নির্বাচনে জনগণকে ভয়-ভীতি দেখিয়ে অস্ত্র ও অর্থের জোরে আমার নিশ্চিত বিজয়কে ছিনিয়ে নেয়। আগামী ২০ সেপ্টেম্বরের নির্বাচনকে সামনে রেখে একই ষড়যন্ত্র করছে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) এক্ষেত্রে ইন্দন যোগাচ্ছেন। একাধিক মামলার আসামি এনামুলের সঙ্গে উক্ত ইউনিয়নে বিভিন্ন কর্মসূচিতে অংশ নিচ্ছেন। এনামুলের ভয়-ভীতি উপেক্ষা করে জনগণ যাতে ভোট দিতে পারে এবং সুষ্ঠু ও অবাধ নির্বাচন হয়, সেজন্য উক্ত ইউএনওকে নির্বাচনী কর্মকাণ্ড থেকে বিরত রাখার অনুরোধ জানিয়েছেন তিনি।

অপর এক আবেদনে পাইকগাছা উপজেলার দেলুটি ইউনিয়ন পরিষদের স্বতন্ত্র প্রার্থী দ্বিজেন্দ্রলাল মূল ইউএনও’র বিতর্কিত কর্মকাণ্ডের কারণে সুষ্ঠু নির্বাচন নিয়ে আশংকা প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেছেন, নির্বাচনকে সামনে রেখে ইউএনও কর্মকাণ্ড সংশ্লিষ্ট সকলকে ভাবিয়ে তুলেছে। নির্বাচনকে প্রভাবিত করার জন্য তিনি বিভিন্ন প্রার্থীর সঙ্গে বিভিন্ন সামাজিক অনুষ্ঠানে অংশ নিচ্ছেন। সকল ভোটারের ভোটদান নিশ্চিত করতে ও সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে উক্ত ইউএনওকে নির্বাচন থেকে বিরত রেখে নিরপেক্ষ প্রতিনিধি নিয়োগের অনুরোধ জানিয়েছেন তিনি।

উল্লেখ্য, পাইকগাছা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) এ বি এম খালিদ হোসেন সিদ্দিকীকে গত ৩ সেপ্টেম্বর সাতক্ষীরার দেবহাটা উপজেলায় বদলি করা হয়। তার বিরুদ্ধে মুজিববর্ষের গৃহনির্মাণে অনিয়মসহ নানা অভিযোগ রয়েছে। তিনি ২০১৯ সালের ২৪ সেপ্টেম্বর পাইকগাছায় যোগদান করেন।



সাতদিনের সেরা