kalerkantho

শুক্রবার । ৮ শ্রাবণ ১৪২৮। ২৩ জুলাই ২০২১। ১২ জিলহজ ১৪৪২

পরীমণি ধর্ষণ এবং হত্যাচেষ্টায় মহিলা পরিষদের উদ্বেগ

‘এ ধরনের বর্বর ঘটনা কোনো সুস্থ সমাজের পরিচায়ক নয়’

অনলাইন ডেস্ক   

১৪ জুন, ২০২১ ১৭:৩৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



‘এ ধরনের বর্বর ঘটনা কোনো সুস্থ সমাজের পরিচায়ক নয়’

অভিনেত্রী পরীমণি ধর্ষণ এবং হত্যাচেষ্টায় উদ্বেগ প্রকাশ করে ঘটনার সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ তদন্ত সাপেক্ষে ঘটনার সাথে জড়িতদের যথাযথ আইনে মামলা গ্রহণসহ জড়িতদের দ্রুত গ্রেফতার এবং নির্যাতনের শিকার পরীমণি ও তার পরিবারের সদস্যদের নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণে বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ বিবৃতি দিয়েছে।

বিবৃতিতে মহিলা পরিষদ জানায়, আমরা গভীর বিস্ময় ও উদ্বেগের সাথে ১৩ জুন ২০২১ তারিখ বিভিন্ন দৈনিক পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদ মাধ্যমে জানতে পারলাম যে, গত ১৩.০৬.২০২১ তারিখ রবিবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম বাংলাদেশের অন্যতম খ্যাতিসম্পন্ন নায়িকা পরীমনি নিজের ভ্যারিফায়েড ফেসবুক পোস্টে এ অভিযোগ করেছেন ‘আমাকে ধর্ষণ এবং হত্যার চেষ্টা করা হয়েছে’। ঘটনা সূত্রে জানা যায়, গত ৮ জুন রাতে উত্তরা বোট ক্লাবে প্রেসিস্টে নাসির উদ্দিন আহমেদ উত্তরা বোট ক্লাবে পরীমণিকে ডেকে নিয়ে নেশা জাতীয় দ্রব্য খাইয়ে ধর্ষণের চেষ্টা করে এবং সার্ট গলায় পেচেঁয়ে হত্যার চেষ্টা করে। সেখানে পরীমণি অসুস্থ অবস্থায় বনানী থানায় মামলা করতে গেলে পরীমণির মামলা গ্রহণ করা হয়নি বলে জানান। তিনি গত ১৩.০৬.২০২১ তারিখ সংবাদ সম্মেলনে বলেন, নির্যাতনকারীরা প্রভাবশালী হওয়ায় তার ও তার পরিবারের সদস্যরা নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। এই ঘটনায় তিনি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে ন্যায়বিচার এবং জীবনের নিরাপত্তা চেয়েছেন।

বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ বাংলাদেশের আলোচিত নায়িকা পরীমণিকে ধর্ষণ ও হত্যার বিষয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে ঘটনার সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ তদন্ত সাপেক্ষে ঘটনার সাথে জড়িতদের যথাযথ আইনে মামলা গ্রহণসহ জড়িতদের দ্রুত গ্রেফতার এবং নির্যাতনের শিকার পরীমণিকে ও তার পরিবারের সদস্যদের নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণের দাবি জানিয়েছে।

বিবৃতিতে বলা হয়, ঢাকা মহানগরীসহ সারাদেশের বিভিন্ন স্থানে একের পর এক এ ধরনের বর্বর ঘটনা কোনো সুস্থ সমাজের পরিচায়ক নয়। বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ সারাদেশে নারী ও কন্যাশিশুর নিরাপত্তাসহ নারীর স্বাধীন চলাচল নিশ্চিতকরণের দাবি জানাচ্ছে। একইসাথে এই ধরণের ঘটনার পুনরাবৃত্তিরোধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় মন্ত্রীসহ সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের নিকট জোর দাবি জানাচ্ছে। সেই সাথে দেশব্যাপী নারী ও শিশু নির্যাতনের বিরুদ্ধে ব্যক্তি ও নাগরিক সমাজকে সামাজিক প্রতিরোধ গড়ে তোলার আহ্বান জানাচ্ছে।



সাতদিনের সেরা