kalerkantho

বুধবার । ২৮ বৈশাখ ১৪২৮। ১১ মে ২০২১। ২৮ রমজান ১৪৪২

মহিলা পরিষদের বিবৃতি

লকডাউনে নারী ও শিশুর প্রতি বর্বর সহিংসতা বাড়ছে

জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি

অনলাইন ডেস্ক   

১৭ এপ্রিল, ২০২১ ১৭:১৯ | পড়া যাবে ৪ মিনিটে



লকডাউনে নারী ও শিশুর প্রতি বর্বর সহিংসতা বাড়ছে

কোভিড-১৯ সংক্রমণ দুর্যোগে সর্বাত্মক লকডাউনে দেশের বিভিন্ন স্থানে গৃহবধূ ও বৃদ্ধা নারীকে ধর্ষণ এবং তরুণীকে ধর্ষণের চেষ্টার বর্বর সহিংসতার ৩টি ঘটনায় গভীর উদ্বেগ ও তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ বিবৃতি দিয়েছে।

বিবৃতিতে গত ১৫ ও ১৬ এপ্রিল তারিখের বিভিন্ন দৈনিক সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদের বরাত দিয়ে বলা হয়, রাজবাড়ী জেলার সদর উপজেলার চরবাগমারা গ্রামে বিদেশ ফেরত গৃহবধূকে দলবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। জানা যায়, গত ১৩ এপ্রিল ২০২১ তারিখ বিদেশ ফেরত ওই গৃহবধূ শরীরে ব্যথা অনুভব করলে তিনি মান্নানকে নিজ বাড়িতে ডেকে আনেন গৃহবধূ। ‘রাতে চিকিৎসা করতে হবে’ বলে ওই গৃহবধূকে জানিয়ে দেন কবিরাজ মান্নান। তার কথা অনুযায়ী চিকিৎসার জন্য রাতে তিন রাস্তার মোড় এলাকায় ওই গৃহবধূ গেলে সদর উপজেলার রায়নগর গ্রামের মৃত মোহন গাইয়েনের কবিরাজ মান্নান গাইয়েন ওরফে মান্নান (৫২) ও তার সহযোগী চরবাগমারা গ্রামের মৃত মনসুর বিশ্বাসের ছেলে ফারুক বিশ্বাস স্থানীয় একটি বিলের নির্জন মাঠে নিয়ে তাকে ধর্ষণ করেন।

বিবৃতিতে বলা হয়, যশোর জেলার শহরতলীর চাঁচড়া ইউনিয়নের সাড়াপোল কারিকর পাড়ায় শত বছর বয়সী নারীকে ধর্ষণ এবং মারপিট করে গুরুতর আহত করার ঘটনা ঘটেছে। জানা যায়, গত ১৪ এপ্রিল ২০২১ তারিখ বিকাল ৫টার দিকে ফিজিক্যাল অ্যাসাল্ট হিসেবে শত বছর বয়সী ওই নারীকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। প্রথমে তাকে মহিলা সার্জারি ওয়ার্ডে পাঠানো হয়। পরে ওই নারীকে ধর্ষণ করা হয়েছে বলে জানানো হলে বৃহস্পতিবার বেলা সোয়া ১১টায় তাকে গাইনি ওয়ার্ডে পাঠানো হয়। যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে আহত বৃদ্ধার শরীরে অস্ত্রোপচার সম্পন্ন হয়েছে।

এছাড়া বিবৃতিতে সিলেট জেলার গোলাপগঞ্জ উপজেলার বাঘা ইউনিয়নের কালাকোনা গ্রামে গিরিধারী জিও মন্দিরের পুরোহিত কর্তৃক তরুণীকে ধর্ষণের চেষ্টার ঘটনা ঘটেছে বলে জানানো হয়। গোলাপগঞ্জ উপজেলার বাঘা ইউনিয়নের কালাকোনা গ্রামে গিরিধারী জিও মন্দিরের পুরোহিত হিসাবে দায়িত্ব পালন করছেন টাংগাইল জেলার দেলদোহার থানার সিলিমপুর গ্রামের কালু চৌহানের ছেলে গোবিন্দ দাস (৪৬)। ধর্মীয় শিক্ষা লাভের জন্য ওই পুরোহিতের কাছে প্রায়ই যাওয়া আসা করতেন কালাকোনা এলাকার তরুণ-তরুণীসহ বিভিন্ন বয়সী হিন্দু ধর্মের অনুসারীরা। মন্দিরের পার্শ্ববর্তী বাড়ির এক তরুণী গত ১৩ এপ্রিল ২০২১ তারিখ সন্ধ্যায় মন্দিরে গেলে পুরোহিত গোবিন্দ দাস ও তার সহযোগী দিপংকর দেব তপন (৩৮) তরুণীটিকে মন্দির থেকে জরুরি কাজের কথা বলে মন্দিরের পাশে নিয়ে তারা তার মুখে চেপে ধরে ধর্ষণের চেষ্টা করলে তরুণী চিৎকার দেয়। এ সময় আশপাশে থাকা এলাকার লোকজন ও তরুণীর স্বজনেরা এগিয়ে এসে তাকে উদ্ধার করে।

বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ গৃহবধূ ও বৃদ্ধা নারীকে ধর্ষণ এবং তরুণীকে ধর্ষণের চেষ্টার ঘটনায় গভীর উদ্বেগ ও তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করে বিবৃতিতে জানায়, ঘটনার সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে যথাযথ আইনী ব্যবস্থা গ্রহনসহ দ্রুত গ্রেফতার এবং সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ তদন্ত সাপেক্ষে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবি জানাচ্ছে। নির্য্তানের শিকার গৃহবধূ, বৃদ্ধা নারী ও তরুণীর সুচিকিৎসাসহ তাদের ও তাদের পরিবারের সদস্যদের নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণের দাবি জানাচ্ছে।

বিবৃতিতে বলা হয়, আমরা লক্ষ্য করছি যে, সারাদেশে সর্বাত্মক লকডাউনে দেশের বিভিন্ন স্থানে বিভিন্ন বয়সের নারী ও শিশুর প্রতি বর্বর সহিংসতার ঘটনা বৃদ্ধি পাচ্ছে। করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধে দেশের সরকার ও পুলিশ প্রশাসনসহ অন্যান্য সংশ্লিষ্ট প্রতিনিধি কাজ করে যাচ্ছে। এমন সময় এ ধরণের বর্বর ঘটনা প্রতিরোধে আশুকার্যকর ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য সরকার, প্রশাসনের বিশেষ দৃষ্টি আকর্ষণ এবং প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য জোর দাবি জানাচ্ছে। এতদসত্বেও জাতীয় সংকট মোকাবেলার পাশাপাশি নারী ও কন্যার প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধ কার্যক্রমকে বিশেষ গুরুত্বের সাথে বিবেচনায় নিতে হবে। সেইসাথে নারী ও কন্যার প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধ এবং সামাজিক অবক্ষয়ের বিরুদ্ধে সারাদেশে সামাজিক প্রতিরোধ গড়ে তোলার আহ্বান জানাচ্ছে।



সাতদিনের সেরা