kalerkantho

রবিবার। ২৮ চৈত্র ১৪২৭। ১১ এপ্রিল ২০২১। ২৭ শাবান ১৪৪২

ইউপি ও পৌরসভা নির্বাচন

ভোটের তিন সপ্তাহ আগেই সহিংসতা

বিশেষ প্রতিনিধি   

২০ মার্চ, ২০২১ ০৩:২৪ | পড়া যাবে ৪ মিনিটে



ভোটের তিন সপ্তাহ আগেই সহিংসতা

ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) সাধারণ নির্বাচনে প্রথম ধাপে দেশের ১৮ জেলার ৩৭১টি ইউপিতে ভোটগ্রহণের তিন সপ্তাহ আগেই কয়েকটি নির্বাচনী এলাকায় সহিংসতার ঘটনা ঘটেছে। বিনা ভোটে নির্বাচিত হওয়ার প্রক্রিয়াও শুরু হয়ে গেছে। আগামী ১১ এপ্রিল এসব ইউপিতে ভোটগ্রহণ হতে যাচ্ছে। একই দিন ১১ পৌরসভা ও লক্ষ্মীপুর-২ আসনের উপনির্বাচন হবে। এসব নির্বাচনে গতকাল শুক্রবার ছিল প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র বাছাইয়ের শেষ দিন। প্রত্যাহারের শেষ তারিখ আগামী ২৪ মার্চ।

বাগেরহাট সদরের ডেমা ইউনিয়নে গত বৃহস্পতিবার রাতে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে গোলাগুলিতে উভয় পক্ষের ১৬ জন গুলিবিদ্ধসহ এই জেলায় মোট ৭৩ জন আহত হয়েছে। ৭ নম্বর ওয়ার্ডের বর্তমান মেম্বার সজীব তরফদার ও প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী অহেদ মোস্তফা বাপ্পির সমর্থকদের মধ্যে এই সংঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান তরফদার মাস্টার মকবুল হোসেনসহ চারজনকে আটক করেছে পুলিশ।

বাগেরহাটের শরণখোলায় পৃথক দুটি সহিংসতায় ৯ নারীসহ অন্তত ২৫ জন আহত হয়েছেন। গতকাল সকালে উপজেলার সাউথখালী ইউনিয়নের ১ নম্বর সোনাতলা ও ৫ নম্বর উত্তর সাউথখালী ওয়ার্ডে সদস্য প্রার্থীদের সমর্থকদের মধ্যে এই সংঘর্ষ হয়। আহতদের শরণখোলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

বরগুনার বেতাগীতে ইউপি নির্বাচন ও পূর্বশত্রুতার জের ধরে সরিষামুড়ি ইউনিয়নের দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এতে গুরুতর আহত হয় প্রায় ১০ জন। গতকাল বেলা সাড়ে ১১টায় উপজেলার কালিকাবাড়ী এলাকায় এ সংঘর্ষে আহতরা বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে বালিপাড়া ইউপি নির্বাচনে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী উপজেলা জামায়াতের আমির হাবিবুর রহমান মুন্সীর মনোনয়নপত্র বাতিল করেছে উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা। প্রার্থীর মনোনয়ন ফরমে সমর্থনকারীর পক্ষে স্বাক্ষরে গরমিল থাকায় তাঁর মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়।

এদিকে মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ের সময় পুলিশের উপস্থিতিতে আওয়ামী লীগ মনোনীত এবং স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে হাতাহাতি হয়। এ সময় স্বতন্ত্র প্রার্থীর এক সমর্থককে অপহরণের অভিযোগ আনা হয়।

বাগেরহাটের ফকিরহাটে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন বেতাগা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রার্থী ইউনুস শেখ ও পিলজংগ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রার্থী মোড়ল জাহিদুল ইসলাম। তাঁরা ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের প্রার্থী। এ ছাড়া ফকিরহাট ইউনিয়নের ৭, ৮ ও ৯ নম্বর সংরক্ষিত আসনের নারী সদস্য প্রার্থী শিউলী বেগম বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন। উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মাসুম বিল্লাহ জানান, একক প্রার্থী হওয়ায় মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার তারিখের পর তাঁদের বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত ঘোষণা করা হবে।

বরিশালের গৌরনদীর সাতটি ইউনিয়নের মধ্যে পাঁচটিতেই ক্ষমতাসীন দলের প্রার্থীদের কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী নেই। এর ফলে খাঞ্জাপুর ইউনিয়নে নুর আলম সেরনিয়াবাত, চাঁদশী ইউনিয়নে সৈয়দ নজরুল ইসলাম, মাহিলাড়া ইউনিয়নে সৈকত গুহ পিকলু, নলচিড়া ইউনিয়নে গোলাম হাফিজ মৃধা ও বাটাজোড় ইউনিয়নে আব্দুর রব হাওলাদার বিনা ভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন। এ ছাড়া বাগেরহাটের শরণখোলার চারটি ইউনিয়নের মধ্যে ৪ নম্বর সাউথখালীতে একমাত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী ক্ষমতাসীন দলের মোজাম্মেল হোসেন।

পৌরসভাগুলোর মধ্যে কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে অন্য কোনো প্রার্থীর মনোনয়নপত্র জমা না হওয়ায় বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আবারও মেয়র হতে যাচ্ছেন আওয়ামী লীগের আবদুল মালেক। ফরিদপুরের ভাঙ্গা পৌরসভায় গতকাল বাছাইয়ে দুইজন স্বতন্ত্র প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে সমর্থক ভোটারের স্বাক্ষরে মিল না থাকার অভিযোগে। তবে স্বতন্ত্র প্রার্থী ইসমাইল মুন্সী অভিযোগ করেছেন, তাঁকে নির্বাচন থেকে কৌশলে সরিয়ে দিতে প্রভাব খাটিয়ে এটা করা হয়েছে। তিনি এ বিষয়ে আপিল করবেন বলে জানান।

চট্টগ্রামের বোয়ালখালী পৌরসভায় গতকাল মেয়র পদের তিন প্রার্থীর মধ্যে দুজনের মনোনয়নপত্র অবৈধ ঘোষণা করেছেন রিটার্নিং অফিসার। এর ফলে সেখানে আওয়ামী লীগ প্রার্থী জহুরুল ইসলাম জহুর বিনা ভোটে জয়ী হতে চলেছেন। মনোনয়নপত্র বাতিল হওয়া প্রার্থীরা আপিলে প্রার্থিতা ফিরে না পেলে তাঁর জয়ের পথে কোনো বাধা থাকবে না। এদিকে ক্ষমতাসীন দলের প্রধান রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ বিএনপি এবারের নির্বাচনে দলীয় প্রতীকে কোনো প্রার্থী দেবে না বলে আগেই জানিয়ে রেখেছে।

নির্বাচন বিশেষজ্ঞরা বলছেন, দেশে স্থানীয় সরকার নির্বাচনের প্রতিটিতেই সহিংসতার নজির রয়েছে। চলমান পৌরসভা নির্বাচনে অনিয়ম-সহিংসতা রোধে নির্বাচন কমিশনকে নিষ্ক্রিয় দেখা গেছে। কমিশনের এমন অবস্থান অব্যাহত থাকলে আসন্ন ইউপি নির্বাচন ঘিরে ব্যাপক সহিংসতার আশঙ্কা উড়িয়ে দেওয়া যায় না।

নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে, ৩৭১টি ইউপির মধ্যে ৩০টিতে ইভিএম ব্যবহার করা হবে। লক্ষ্মীপুর-২ আসনের উপনির্বাচন এবং ১১ পৌরসভায়ও ভোটগ্রহণ হবে ইভিএমে। পৌরসভাগুলো হচ্ছে—কুমিল্লার নাঙ্গলকোট, ঝালকাঠির সদর, ফরিদপুরের ভাঙ্গা, ফেনীর সোনাগাজী, নোয়াখালীর কবিরহাট, কক্সবাজারের মহেষখালী ও চকরিয়া, দিনাজপুরের সেতাবগঞ্জ, পঞ্চগড়ের দেবীগঞ্জ, চট্টগ্রামের বোয়ালখালী ও যশোরের নওয়াপাড়া (অভয়নগর)।

[প্রতিবেদনটি তৈরিতে তথ্যের জোগান দিয়েছেন স্থানীয় প্রতিনিধিরা]

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা