kalerkantho

বুধবার । ১৩ মাঘ ১৪২৭। ২৭ জানুয়ারি ২০২১। ১৩ জমাদিউস সানি ১৪৪২

শ্রমিক কর্মচারী ঐক্য পরিষদ (স্কপ)-এর নেতাসহ বিভিন্ন মহলের শোক

‘জাতীয় শ্রমিক লীগ সভাপতি মন্টুর মৃত্যুতে শ্রমিক আন্দোলনের অপূরণীয় ক্ষতি হলো’

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২০ নভেম্বর, ২০২০ ২০:০৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



‘জাতীয় শ্রমিক লীগ সভাপতি মন্টুর মৃত্যুতে শ্রমিক আন্দোলনের অপূরণীয় ক্ষতি হলো’

জাতীয় শ্রমিক লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক মন্টু চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। আজ শুক্রবার (২০ নভেম্বর) রাজধানীর একটি হাসপাতালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৭১ বছর। তিনি স্ত্রী, এক ছেলে, এক মেয়েসহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন, সহকর্মী, গুণগ্রাহী ও শুভানুধ্যায়ী রেখে গেছেন।

ঐক্যবদ্ধ শ্রমিক অন্দোলন গড়ে তুলতে ও শ্রমিকদের ন্যায্য অধিকারসমূহ আদায়ে সদা সচেষ্ট বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক মন্টুর মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটির সভাপতি ও সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শামসুল হক টুকু। তিনি এক বিবৃতিতে ফজলুল হক মন্টু‘র শোকাহত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন।

এদিকে শ্রমিক কর্মচারী ঐক্য পরিষদ (স্কপ)-এর যুগ্ম সমন্বয়ক ফজলুল হক মন্টু’র মৃত্যুতে দেশের শ্রমিক আন্দোলনের অপূরণীয় ক্ষতি হলো বলে উল্লেখ করেছেন স্কপ নেতৃবৃন্দ। তার মৃত্যুতে গভীর শোক ও সমবেদনা প্রকাশ করেছেন স্কপের যুগ্ম সমন্বয়কারী শ্রমিক নেতা শহিদুল্লাহ চৌধুরী, স্কপ নেতা মেজবাহ উদ্দিন আহমেদ, শাহ মো. জাফর, আনোয়ার হোসেন, ডা. ওয়াজেদুল ইসলাম খান, সাইফুজ্জামান বাদশা, কামরুল আহসান, রাজেকুজ্জামান রতন, হাবিব উল্লাহ, আ. য. ম খসরু, চৌধুরী আশিকুল আলম, নাইমুল আহসান জুয়েল, শামিম আরা, শাকিল আক্তার চৌধুরী, আহসান হাবিব বুলবুল, পুলক রঞ্জন ধর, নুরুল আমিন প্রমুখ।

অপর এক বিবৃতিতে সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্ট কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি রাজেকুজ্জামান রতন ও সাধারন সম্পাদক আহসান হাবিব বুলবুল বিশিষ্ট শ্রমিক নেতা ফজলুল হক মন্টু‘র মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করে এবং তার প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা