kalerkantho

মঙ্গলবার। ৫ মাঘ ১৪২৭। ১৯ জানুয়ারি ২০২১। ৫ জমাদিউস সানি ১৪৪২

বিমান বাহিনী প্রধান এয়ার চীফ মার্শাল মাসিহুজ্জামান সেরনিয়াবাতের

‘বাংলাদেশ এয়ার শো-২০২২’ ওয়েবপেজ উদ্বোধন

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১২ নভেম্বর, ২০২০ ২০:০৬ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



‘বাংলাদেশ এয়ার শো-২০২২’ ওয়েবপেজ উদ্বোধন

বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর সার্বিক ব্যবস্থাপনায় স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপনের অংশ হিসেবে বাংলাদেশ ২০২২ সালে ‘Bangladesh Air Show-2022’ নামের একটি আন্তর্জাতিক এয়ার শো-র আয়োজন করতে যাচ্ছে। এ লক্ষ্যে ‘বাংলাদেশ এয়ার শো-২০২২’এর ওয়েবপেজ লাঞ্চিং অনুষ্ঠান বৃহস্পতিবার বিএএফ ফ্যালকন হল, তেজগাঁও, ঢাকায় অনুষ্ঠিত হয়।

বাংলাদেশ বিমান বাহিনী প্রধান এয়ার চীফ মার্শাল মাসিহুজ্জামান সেরনিয়াবাত, বিবিপি, ওএসপি, এনডিইউ, পিএসসি প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে পেজটি উদ্বোধন করেন। এর আগে প্রধান অতিথি অনুষ্ঠানস্থলে এসে পৌছালে সহকারী বিমান বাহিনী প্রধান (পরিকল্পনা) মোঃ শফিকুল আলম, বিবিপি, ওএসপি, বিএসপি, এনডিসি, এফএডব্লিউসি, পিএসসি তাকে স্বাগত জানান। উল্লেখ্য যে, এই অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর তত্ত্বাবধানে ২০২২ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে এই এয়ার শো আয়োজনের প্রাথমিক তথ্য-সম্বলিত ওয়েবপেজ বিশ্বের কাছে উন্মুক্ত করা হয়েছে।

প্রধান অতিথি তাঁর বক্তব্যের শুরুতেই মহান আল্লাহর ওপর পরম শুকরিয়া জ্ঞাপন করেন। তিনি পরম শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করেন সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে যার অবদানে আমরা পেয়েছি স্বাধীন, সার্বভৌম বাংলাদেশ। এছাড়াও, তিনি মহান মুক্তিযুদ্ধে শাহাদাত বরণকারী সকল শহীদদের গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করেন এবং তাদের বিদেহী আত্মার মাগফেরাত ও পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন। তিনি বলেন যে, মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় জন্ম নেয়া বাংলাদেশ বিমান বাহিনী স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উপলক্ষে যে এয়ার শো-এর আয়োজন করতে যাচ্ছে তার মাধ্যমে বাংলাদেশ বিশ্বের দরবারে নতুন ভাবে পরিচিতি লাভ করবে।

এয়ার শো আয়োজন একটি দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়ন, পর্যটন শিল্পের প্রসার, নতুন কর্মসংস্থানের দ্বার উন্মোচনসহ বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনের পথকে বেগবান করতে যথেষ্ট ভূমিকা রাখে। এই লক্ষ্য কে সামনে রেখে বিশ্বের দীর্ঘতম ও নিরবিচ্ছিন্ন সমুদ্র সৈকতের শহর ক·বাজারকে এই আয়োজনের স্থান হিসেবে বেছে নেওয়া হয়েছে। এই আয়োজনের মাধ্যমে বাংলাদেশ এবং বাংলাদেশের সার্বিক প্রবৃদ্ধির ধারাকে বিশ্বের দরবারে উপস্থাপন করা সম্ভব হবে। জাতির পিতার সুযোগ্য কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বর্তমান সরকার উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে বাংলাদেশের মর্যাদা উন্নয়নের লক্ষ্য বাস্তবায়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে।

আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তর (আইএসপিআর) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, এই এয়ার শো এর মাধ্যমে বাংলাদেশে এভিয়েশন শিল্পের অমিত সম্ভাবনার দ্বার উন্মুক্ত হবে এবং সারাবিশ্বের কাছে কক্সবাজার পর্যটন শিল্পের পরিচিতিসহ প্রস্তাবিত আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরকে পূর্ব-পশ্চিমের সংযোগ কেন্দ্র হিসেবে প্রত্যাশা করা হবে। সর্বোপরি সার্বিকভাবে বাংলাদেশের উন্নতির চিত্র উপস্থাপনের পাশাপাশি বিনিয়োগ, কর্মসংস্থান এবং বৈদেশিক মুদ্রা আয়সহ বাংলাদেশের সামগ্রিক প্রবৃদ্ধিতে এই এয়ার শো সুস্পষ্ট প্রভাব ফেলবে বলে আশা করা যায়।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে বিমান সদরের প্রিন্সিপাল ষ্টাফ অফিসারগণ, চেয়ারম্যান বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ, সশস্ত্র বাহিনী বিভাগের প্রতিনিধি, প্রতিরক্ষা গোয়েন্দা মহাপরিদপ্তরের প্রতিনিধি, আমন্ত্রিত অতিথিগণসহ প্রিণ্ট এবং ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সদস্যগণ উপস্থিত ছিলেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা