kalerkantho

রবিবার । ১০ মাঘ ১৪২৭। ২৪ জানুয়ারি ২০২১। ১০ জমাদিউস সানি ১৪৪২

ঢাবি অধ্যাপক জিয়ার বিরুদ্ধে দুই মামলার প্রতিবেদন পেছাল

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১ নভেম্বর, ২০২০ ১৮:২৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ঢাবি অধ্যাপক জিয়ার বিরুদ্ধে দুই মামলার প্রতিবেদন পেছাল

আসসালামু আলাইকুম’ ও ‘আল্লাহ হাফেজ’ বলাকে জঙ্গিবাদের চর্চা বলে মন্তব্য করার অভিযোগে দায়ের করা দুই মামলায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্রিমিনোলজি বিভাগের অধ্যাপক জিয়া রহমানের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল পিছিয়ে আগামী ২৪ নভেম্বর দিন ধার্য করেছেন আদালত।

আজ রবিবার বাংলাদেশ সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক আসসামছ জগলুল হোসেনের আদালত নতুন এ দিন ধার্য করেন।

এদিন তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য দিন ধার্য ছিল। কিন্তু প্রতিবেদন দাখিল না করায় আদালত আগামী ২৪ নভেম্বর পরবর্তী দিন ধার্য করেন।

এর গত ২৫ অক্টোবর মাসিক আল বাইয়্যিনাত ও দৈনিক আল ইহসানের সম্পাদক মুহম্মদ মাহবুব আলম এবং  ইমরুল হাসান নামে এক আইনজীবী অধ্যাপক জিয়ার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দুটি মামলা করেন। পরে ট্রাইব্যুনাল অভিযোগের বিষয়ে সিটিটিসির সাইবার সিকিউরিটি অ্যান্ড ক্রাইম বিভাগকে ১ নভেম্বর প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেন।
এদিকে ২২ অক্টোবর ড. জিয়া রহমানকে দুই দিনের মধ্যে বক্তব্য প্রত্যাহার করে ক্ষমা চাওয়ার আহ্বান জানিয়ে আইনি নোটিশ পাঠিয়েছিলেন মুহম্মদ মাহবুব আলমের পক্ষে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মুহম্মদ শেখ ওমর শরীফ।

মামলার অভিযোগে বলা হয়, ‘আসসালামু আলাইকুম’ বলা ও ‘আল্লাহ হাফেজ’ বলাকে গর্হিত, নিন্দনীয়, জঘন্য ব্যাখ্যা করেন অধ্যাপক জিয়া রহমান। এসবকে জঙ্গিবাদের সঙ্গে সম্পৃক্ত করেন তিনি।

সম্প্রতি বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেলের ‘উপসংহার’ নামক টক শোতে ‘ধর্মের অপব্যাখ্যায় জঙ্গিবাদ’ বিষয়ক আলোচনায় মুসলিমদের শুদ্ধ উচ্চারণে ‘আসসালামু আলাইকুম’ বলা ও ‘আল্লাহ হাফেজ’ বলাকে গর্হিত, নিন্দনীয়, জঘন্য ব্যাখ্যা করেন অধ্যাপক জিয়া রহমান।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা