kalerkantho

শনিবার । ২৪ শ্রাবণ ১৪২৭। ৮ আগস্ট  ২০২০। ১৭ জিলহজ ১৪৪১

চামড়া সংরক্ষণে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের 'নজিরবিহীন' নেটওয়ার্কিং

অনলাইন ডেস্ক   

১ আগস্ট, ২০২০ ২১:০২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চামড়া সংরক্ষণে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের 'নজিরবিহীন' নেটওয়ার্কিং

এ বছর কোরবানির চামড়া সংরক্ষণে বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে নজিরবিহীন নেটওয়ার্কিংয়ের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। কোরবানিকৃত পশুর চামড়া নিয়ে যাতে কোনো ধরনের বিশৃঙ্খলার সৃষ্টি না হয় সেজন্যই এ নেটওয়াকিংয়ের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়। এই নেটওয়ার্কিংয়ের আওতায় চামড়া-সংক্রান্ত বিষয়ে দেশের সকল জেলা প্রশাসনকেও সম্পৃক্ত করা হয়েছে। ‘সমন্বিত নেটওয়াকিং’ কোরবানির পশুর চামড়া লবণ-মাখিয়ে সংরক্ষণ করার ওপর জোর গুরুত্ব দিচ্ছে।

অপরদিকে চামড়া-সংক্রান্ত সকল বিষয়ে তদারকির জন্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ও যুগ্ম-সচিব পর্যায়ের কর্মকর্তারা দেশের বিভিন্ন বিভাগ ও জেলায় আগামীকাল থেকে পরিদর্শন করা শুরু করবেন।

বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম-সচিব (আমদানি) এইচ এম শফিকুজ্জামান আজ শনিবার বিকেলে গণমাধ্যমকে এসব কথা বলেন। তিনি শনিবার কাঁচা চামড়া কেনা-বেচা সংক্রান্ত সমস্যা সমাধানে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে চালুকৃত ‘কন্ট্রোল সেলের’ দায়িত্বে ছিলেন।

এইচ এম শফিকুজ্জান বলেন, তাৎক্ষণিকভাবে কাঁচা চামড়ার ন্যায্যমূল্য পাওয়া না গেলে চামড়ায় লবণ মাখিয়ে সংরক্ষণ করতে হবে। লবণ-মাখানো চামড়া এক থেকে দেড় মাস সুন্দরভাবে রাখা যায়।’ দেশের মাদরাসাগুলোতেও এই পদ্ধতিতে চামড়া সংরক্ষণের আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, সকলেই লাভবান হবে। কেননা মন্ত্রণালয় ইতিমধ্যে লবণ-মাখানো কাঁচা-চামড়া রপ্তানির নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে চামড়া রপ্তানির অনুমতি দিয়েছে।

তিনি জানান, তিনিও চামড়া-সংক্রান্ত বিষয়ে তদারকির জন্য আগামীকাল রবিবার রাজশাহী যাচ্ছেন। চামড়া-সংক্রান্ত অভিযোগ পেয়েছেন কিনা তা জানতে চাওয়া হলে যুগ্ম-সচিব (আমদানি) বলেন, তারা প্রতি মিনিটে ৪/৫ টি করে অভিযোগ পাচ্ছেন।

এদিকে, পবিত্র ঈদুল আজহার নামাজ শেষে আজ রাজধানীসহ সারা দেশে বিপুল-সংখ্যক পশু কোরবানি দেওয়া হয়েছে। রাজধানীতে ঢাকা দক্ষিণ ও উত্তর উভয় সিটি করপোরেশনের নির্ধারিত স্থান ছাড়াও বিভিন্ন সড়ক ও পাড়া-মহল্লার রাস্তায় আজ সকাল ৯টা থেকেই ধর্মপ্রাণ মুসল্লীদের মহান আল্লাহর নৈকট্য-লাভের আশায় পশু কোরবানি করতে দেখা যায়।

তবে, কোরবানির পর কোরবানির পশুর চামড়া বেচা-কেনায় ক্রেতা-বিক্রেতা উভয় পক্ষের মধ্যেই এক-ধরনের শৈথিল্য লক্ষ্য করা গেছে।

বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের নির্ধারিত দামে চামড়া কেনায় আগ্রহ দেখায়নি ক্রেতারা। ঢাকায় লবণমাখানো কাঁচা চামড়ার দর বর্গফুট প্রতি ৩৫ থেকে ৪০ টাকা নির্ধারণ করে দেওয়া হলেও এ দামে চামড়া কেনার তেমন সাড়া মিলেনি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা