kalerkantho

সোমবার । ২৬ শ্রাবণ ১৪২৭। ১০ আগস্ট ২০২০ । ১৯ জিলহজ ১৪৪১

সরকার বন্যাকবলিত মানুষের পাশে দাঁড়াচ্ছে না : রিজভী

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১১ জুলাই, ২০২০ ১৭:০৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সরকার বন্যাকবলিত মানুষের পাশে দাঁড়াচ্ছে না : রিজভী

সরকার বন্যাকবলিত মানুষের পাশে নেই বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী। তিনি বলেন, ভারি বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে দেশের বিভিন্ন এলাকায় সৃষ্ট বন্যা পরিস্থিতিতে কবলিত মানুষের পাশে দাঁড়াচ্ছে না সরকার। অসংখ্য মানুষ এখন পানিবন্দি হলেও বন্যাকবলিত মানুষদের নিয়ে সম্পূর্ণরূপে নির্বিকার সরকার। বন্যা উপদ্রুত মানুষের সাহায্যের জন্য সকারের কোনো তৎপরতা নেই।

আজ শনিবার দুপুরে নয়াপল্টনে এক ভিডিও কনফারেন্সে তিনি এসব কথা বলেন।

রিজভী বলেন, দেশের উত্তর ও পূর্বাঞ্চলে বন্যা পরিস্থিতির চরম অবনতি ঘটেছে। লক্ষ লক্ষ মানুষ পানিবন্দি। ভারি বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে সৃষ্ট বন্যায় সিলেট ও সুমানগঞ্জ জেলায় শত শত কিলোমিটার সড়ক বিপর্যস্ত হয়ে কয়েক শ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে। নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় চাঁদপুর শহরেও এখন বিপজ্জনক অবস্থা।

তিনি বলেন, ভারতের গজলডোবায় সবকটি গেট খুলে দেয়ায় এবং বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলে তিস্তার পানি বিপদ সীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়ে বাংলাদেশের উত্তরাঞ্চল- কুড়িগ্রাম, নীলফামারী, লালমনিরহাট, রংপুর, গাইবান্ধায় হু হু করে বন্যার পানি ঢুকে বিস্তীর্ণ এলাকা প্লাবিত হয়েছে। উজানের পানিতে ফরিদপুরসহ দেশের মধ্যাঞ্চলের বিভিন্ন এলাকা বন্যায় প্লাবিত হয়েছে। 

তিনি আরো বলেন, এমনিতেই করোনার অভিঘাতে বিপর্যস্ত দেশ, তার ওপর ধেয়ে আসার বন্যার কবলে জনজীবন এখন চরম ভোগান্তির মধ্যে। অবিরাম বর্ষণে গরিব মানুষের ঘরবাড়ি তলিয়ে যাওয়ায় গৃহপালিত গবাদি পশু নিয়ে চরম বিপাকে পড়েছে মানুষ।

অবিলম্বে বন্যাদুর্গত এলাকায় মানুষকে বাঁচাতে দেশবাসীকে এগিয়ে আসার জন্য অনুরোধ করেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা