kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ৪ জুন ২০২০। ১১ শাওয়াল ১৪৪১

মধ্যরাতের নিরবতা

সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায় বন্ধ হয়ে গেছে সব দোকানপাট

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৬ এপ্রিল, ২০২০ ২৩:২৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায় বন্ধ হয়ে গেছে সব দোকানপাট

সরকারি নির্দেশ মতো সন্ধ্যা সাড়ে ৬টাতেই বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে বাজার ও অলিগলির দোকান। রাস্তার মানুষকে ঘরে যেতে তাগাদা দিচ্ছেন এক দল যুবক। আট থেকে ১০ জনের একটি দল মাঝে মাঝেই মহল্লার রাস্তাগুলোতে বেরিয়ে আসছেন তারা। ফলে রাস্তায়ও খুব একটা মানুষ চোখে পড়েনি সন্ধ্যা ৭টার পর। যে কয়জন দেখা গেছে তারা কাজ থেকে বাড়ি ফিরছেন বলে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে। ফলে সন্ধ্যা রাতেই শহরের অলিগলিতে নেমে এসছে মধ্যরাতের নিরবতা। রাজধানীর মুগদা ও মানিকনগর এলাকা ঘুরে এমন চিত্র পাওয়া যায়। 

ওষুধের দোকান ছাড়া প্রতিদিন সন্ধ্যা ৬টার মধ্যে রাজধানীর কাঁচাবাজার ও সুপারশপসহ সব ধরনের দোকানপাট বন্ধের নির্দেশ দিয়েছে ঢাকা মহানগর পুলিশ (ডিএমপি)। সোমবার ঢাকা মহানগর পুলিশের পক্ষ থেকে সব ইউনিটকে এই নির্দেশনা দেওয়া হয়।

ডিএমপির মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মাসুদুর রহমান বলেন, সুপারশপ ও স্বীকৃত কাঁচাবাজারগুলো ভোর ৬টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত চালু রাখা যাবে। পাড়ামহল্লার মুদি দোকানগুলো খোলা থাকবে ভোর ৬টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত। চালু থাকবে শুধুমাত্র ওষুধের দোকান।

এলাকা ঘুরে, রাস্তায় রিকশাও চলতে দেওয়া হচ্ছে না। কিছু কিছু গলির প্রবেশ পথে বাঁশ ও কাঠ দিয়ে বন্ধ করে দিয়েছে এলাকার লোকজন। এর আগে বিকেলের দিকে স্থানীয় থানাগুলো থেকে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার পর দোকাপাট বন্ধ রাখতে নির্দেশ দিয়া হয়েছিল। ঘোষণার পর থেকেই ভ্রাম্যমাণ দোকানগুলোকে সরিয়ে দেয় এলাকার লোকজন। সন্ধ্যার দিকে টহল পুলিশ দোকান বন্ধের নির্দেশ দিলে বিক্রেতারা বন্ধ করে চলে যান। একই অবস্থা গলির দোকানগুলোরও।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা