kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৭ চৈত্র ১৪২৬। ৩১ মার্চ ২০২০। ৫ শাবান ১৪৪১

শিশু সায়মা হত্যা : সাক্ষ্যগ্রহণ শেষ আত্মপক্ষ সমর্থন ২৩ ফেব্রুয়ারি

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২০ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০৪:৩৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



শিশু সায়মা হত্যা : সাক্ষ্যগ্রহণ শেষ আত্মপক্ষ সমর্থন ২৩ ফেব্রুয়ারি

রাজধানীর ওয়ারীতে সিলভারডেল স্কুলের নার্সারির ছাত্রী সামিয়া আফরিন সায়মা ধর্ষণ ও খুনের ঘটনায় দায়ের করা মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণ শেষ হয়েছে। গতকাল বুধবার ঢাকার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-১-এর বিচারক কাজী আবদুল হান্নান তিন সাক্ষীর জবানবন্দি গ্রহণ করেন। এরপর আগামী ২৩ ফেব্রুয়ারি আসামির আত্মপক্ষ সমর্থনের তিন ধার্য করেন।

গতকাল শেষ দিনে সাক্ষ্য দিয়েছেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশের গোয়েন্দা শাখার (ডিবি) পরিদর্শক মো. আরজুন, প্রথম তদন্ত কর্মকর্তা ওয়ারী থানার উপপরিদর্শক (এসআই) হারুন অর রশীদ ও ময়নাতদন্ত সম্পন্নকারী চিকিত্সক ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ডা. সোহেল মাহমুদ।
গত ২ জানুয়ারি একমাত্র আসামি হারুন অর রশীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়। গত বছর ৫ নভেম্বর হারুনকে আসামি করে অভিযোগপত্র দেওয়া হয়। 

গত বছরের ৫ জুলাই সন্ধ্যার পর ওয়ারীর একটি বাড়ির নবম তলায় শিশু সায়মার লাশ পাওয়া যায়। ওই বাড়ির ষষ্ঠ তলায় সায়মা তার পরিবারের সঙ্গে থাকত। লাশ পাওয়ার আগে সে তার মাকে ওপরের তলায় খেলতে যাচ্ছিল বলে জানায়। কিন্তু সে ফিরে না আসায় তার খোঁজ করতে করতে নবম তলায় তাকে গলায় রশি পেঁচানো অবস্থা পাওয়া যায়। এ ঘটনায় সায়মার বাবা আবদুস সালাম বাদী হয়ে ওয়ারী থানায় মামলা করেন। পুলিশ ৭ জুলাই কুমিল্লার তিতাস থানার ডাবরডাঙ্গা এলাকা থেকে হারুন অর রশীদকে গ্রেপ্তার করে। পরদিন হারুন আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়ে সায়মাকে ধর্ষণের পর হত্যার দায় স্বীকার করেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা