kalerkantho

সোমবার। ২৭ জানুয়ারি ২০২০। ১৩ মাঘ ১৪২৬। ৩০ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১     

বিজয়ের সাজে সেজেছে রাজধানী

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:৫৬ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



বিজয়ের সাজে সেজেছে রাজধানী

প্রতি বছর বিনম্র শ্রদ্ধায় জাতি স্মরণ করে মহান বিজয় দিবস। ১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর বিশ্ব মানচিত্রে জন্ম নেয় স্বাধীন বাংলাদেশ। ৪৭তম বিজয় দিবস পূর্ণ হলো এবার। আর এ উপলক্ষে লাল সবুজ আলোয় সেজেছে রাজধানী ঢাকাসহ পুরো দেশ। প্রকৃতিতে শীতের উপস্থিতি, দেশজুড়ে নির্বাচনি আমেজ অন্য দিকে বিজয়ের আনন্দ যেন কোটি বাঙালির হৃদয়কে আপ্লুত করে যাচ্ছে।

গতকাল রবিবার সন্ধ্যার পর রঙ-বেরঙের আলোকচ্ছটায় ঝলমলিয়ে ওঠেছে পুরো ঢাকা। রক্তের লাল আর শ্যামল সবুজ বর্ণের আলোকসজ্জা যেন এক উজ্জ্বল পতাকা। আলোকিত ঢাকা দেখে মুগ্ধ রাজধানীবাসী। সন্ধ্যার পর থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত রাজধানীর বিভিন্ন এলাকা ঘুরে এমন দৃশ্য দেখা গেছে।

১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর বিশ্ব মানচিত্রে জন্ম নেয় স্বাধীন বাংলাদেশ। ৪৮তম বিজয় দিবস পূর্ণ হলো এবার। আর এর উপলক্ষে লাল সবুজ আলোয় সেজেছে রাজধানী ঢাকাসহ পুরো দেশ। হালকা শীতের উপস্থিতি বিজয়ের আনন্দ যেন কোটি বাঙালির হৃদয়কে আপ্লুত করে যাচ্ছে। আর আনন্দে বর্ণিল সাজে সাজিয়ে বিজয়ের আলোয় নিজেদের ভাসিয়ে বাঙালির শৃঙ্খলমুক্ত হওয়ার দিনটি এভাবেই প্রাণভরে উদযাপন করছেন সবাই।

রাজধানীর কারাওয়ান বাজার, বাংলামটর, ফার্মগেট, শাহবাগ, কাঁটাবন, সংসদ ভবন এলাকা, শেরে বাংলা নগর, পল্টন, মোহাম্মদপুর, বিজয় স্মরণী, মহাখালী, মগবাজার, মতিঝিল, মিরপুর এলাকায় গিয়ে দেখা গেছে, ধর্ম-বর্ণ, ধনী-গরিব সবাই মিশে একাকার হয়ে গেছে। লাল-সবুজের আবহ মিশিয়ে বাংলাদেশের পতাকার আদলে করা বিভিন্ন ভবনে আলোকসজ্জা ছিল দৃষ্টিনন্দন। ভবনে বাতির ঝলমলে ফুটে উঠেছে লাল সবুজের জাতীয় পতাকা।

সন্ধ্যা থেকেই রাজধানীর ঢাকার বিভিন্ন ভবনের সামনে ঘুরে ঘুরে বর্ণিল আলোকসজ্জা দেখে বেড়াচ্ছেন অনেকেই। আবার কেউ কেউ তুলছেন সেলফি। এ যেনো অন্যরকম পুলক। মনকড়া এমন আলোকসজ্জায় মুগ্ধ সবাই। এ আলোকসজ্জা দেখে মুগ্ধ কর্মব্যস্ত মানুষও। অনেকে ঘুরে ঘুরে দেখছেনে আবার অনেকে সুন্দর এ দৃশ্য ক্যামেরায় ধারণ করছেন।

এদিকে, মহান বিজয় উপলক্ষে সরকারি, বেসরকারি ও বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের পক্ষ থেকে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। কর্মসূচির মধ্য রয়েছে, সূর্যোদয় ক্ষণে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে, বঙ্গবন্ধু ভবন ও দেশব্যাপী সংগঠনের কার্যালয়ে জাতীয় পতাকা ও দলীয় পতাকা উত্তোলন।

সকাল ৬টা ৩৪ মিনিটে সাভার জাতীয় স্মৃতিসৌধে পুষ্পার্ঘ্য নিবেদন। ৮টায় বঙ্গবন্ধু ভবনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন। সকাল ১০টায় টুঙ্গিপাড়ায় চিরনিদ্রায় শায়িত জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন, জিয়ারত, দোয়া ও মিলাদ মাহফিল।

বেলা ১১টায় গোপালগঞ্জের ঐতিহাসিক টুঙ্গিপাড়ায় অনুষ্ঠিতব্য কেন্দ্রীয় কর্মসূচিতে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য লে. কর্নেল (অব.) মুহাম্মদ ফারুক খান এমপি, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সদস্য আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ এমপি, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ, শ্রম ও জনশক্তি বিষয়ক সম্পাদক হাবিবুর রহমান সিরাজ প্রমুখ নেতৃবৃন্দ অংশগ্রহণ করবেন।

এছাড়াও মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে আওয়ামী লীগ আয়োজিত আলোচনা সভা ১৭ ডিসেম্বর মঙ্গলবার বিকেল ৩টায় বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা