kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৫ অক্টোবর ২০১৯। ৩০ আশ্বিন ১৪২৬। ১৫ সফর ১৪৪১       

সম্রাটের জীবনের ঝুঁকি নেই : চিকিৎসক

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৯ অক্টোবর, ২০১৯ ১৫:৪০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সম্রাটের জীবনের ঝুঁকি নেই : চিকিৎসক

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের বহিষ্কৃত সভাপতি ইসমাইল হোসেন চৌধুরী সম্রাটের শারীরিক অবস্থায় কোনো জটিলতা নেই বলে জানিয়েছেন তার চিকিৎসার দায়িত্বে থাকা ডা. মহসিন আহমেদ।

আজ বুধবার দুপুরে সাংবাদিকদের কাছে সম্রাটের সর্বশেষ শারীরিক অবস্থা সম্পর্কে জানান তিনি।

ডা. মহসিন আহমেদ জানান, সম্রাটের হার্টবিট কিছুটা অনিয়মিত কাজ করছে, তবে তার জীবনের ঝুঁকি নেই। তবে তার শরীরের সর্বশেষ অবস্থা জানতে আরো ২৪ ঘণ্টা অপেক্ষা করতে হবে।

তিনি বলেন, তার চিকিৎসা বাংলাদেশে করা সম্ভব এবং এই হাসপাতালেই করা সম্ভব, তার তেমন কোনো জটিলতা নেই।

তিনি আরো বলেন, গতকাল পরিচালক বলেছিল উনি সুস্থ না, অবস্থা স্থিতিশীল। গতকাল থেকে আমরা খেয়াল করছিলাম তার হার্টের পার্রলস অনিয়মিত ছিল। আমাদের চিকিৎসকরা তাকে দেখেন, ঔষধের ডোজ বাড়িয়ে দিয়েছেন। আশা করি, তাকে পর্যবেক্ষণ করে আগামীকাল বলতে পারব, তিনি কেমন আছেন।

অন্যান্য পরীক্ষার ফলাফল ভাল জানিয়ে তিনি বলেন, বাকী পরীক্ষাগুলোর রিপোর্ট ভাল আছে। তার শারীরিক অবস্থা এখন বলা কঠিন। কারণ এর আগে তার হার্টের বাল্ব রিপ্লেস করা হয়েছে। আগে থেকে তার হার্টবিট অনিয়মিত ছিল, তার হার্টবিট দুর্বল ছিল।

উল্লেখ্য, গত ৭ অক্টোবর বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে রমনা মডেল থানায় র‌্যাব-১ এর ডিএডি আব্দুল খালেক বাদী হয়ে সম্রাটের নামে অস্ত্র ও মাদক আইনে পৃথক দুটি মামলা করেন। এর মধ্যে যুবলীগের সহ-সভাপতি এনামুল হক আরমানকেও মাদক মামলায় আসামি করা হয়। ওই দিনই সম্রাটের বিরুদ্ধে দুই মামলায় ১০ দিন করে ২০ দিনের রিমান্ড আবেদন করে পুলিশ। এ ছাড়া মাদক মামলায় আরমা‌নের ১০ দি‌নের রিমান্ড আবেদন করা হয়।

এ ছাড়া মদ্যপ অবস্থায় পেয়ে আটকের সময়ই আরমানকে ছয়মাসের কারাদণ্ড দেন র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত। আর কাকরাইলের কার্যালয়ে বন্যপ্রাণীর চামড়া সংরক্ষণের দায়ে সম্রাটকেও একই মেয়াদে সাজা দেওয়া হয়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা