kalerkantho

ট্রেনে অবৈধ মালামাল বহন নিয়ন্ত্রণে স্ক্যানার বসানোর সুপারিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ২১:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ট্রেনে অবৈধ মালামাল বহন নিয়ন্ত্রণে স্ক্যানার বসানোর সুপারিশ

রেলের মাধ্যমে যাতে অস্ত্র, মাদকসহ অবৈধ মালামাল বহন করতে না পারে সে জন্য ঢাকার কমলাপুর, বিমানবন্দর ও চট্টগ্রাম রেলস্টেশনে এখনই স্ক্যানার মেশিন বসানের সুপারিশ করেছে রেলপথ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটি। কমিটির বৈঠকে রেলওয়ের সবধরনের অনিয়ম-দুর্নীতি বন্ধ ও রেলকে আধুনিকীকরণের জন্য এন্টারপ্রাইজ রিসোর্স প্ল্যানিং সিস্টেম (ইআরপি) বাস্তবায়নে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে।

আজ বুধবার জাতীয় সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন কমিটির সভাপতি এ বি এম ফজলে করিম চৌধুরী। বৈঠকে কমিটির সদস্য ও রেলপথমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন, আসাদুজ্জামান নূর, শফিকুল ইসলাম শিমুল, শফিকুল আজম খাঁন, মো. সাইফুজ্জামান, এইচ এম ইব্রাহিম, নাছিমুল আলম চৌধুরী, গাজী মোহাম্মদ শাহ নওয়াজ ও নাদিরা ইয়াসমিন জলি অংশগ্রহণ করেন।

কমিটি সূত্র জানায়, বৈঠকে ট্রেনে অবৈধ মালামাল পরিবহন প্রতিরোধ ও যাত্রীর নিরাপত্তার স্বার্থে ঢাকার কমলাপুর ও বিমানবন্দর ও চট্টগ্রাম স্টেশনে বডি স্ক্যানার এবং লাগেজ স্ক্যানার দ্রুত স্থাপনের সুপারিশ করা হয়। এ ছাড়াও কমিটি ঢাকা ও চট্টগ্রামের পাশাপাশি পর্যায়ক্রমে দেশের সকল জেলা ও উপজেলা স্টেশনেও বডি স্ক্যানার এবং লাগেজ স্ক্যানার স্থাপনের সুপারিশ করে।

বৈঠকে সিলেটের কুলাউড়ায় সেতু থেকে বগি পড়ে গিয়ে রেল দুর্ঘটনার তদন্ত রিপোর্ট কমিটিতে উত্থাপন করা হয়। ওই রিপোর্টে জানান হয়, এ দুর্ঘটনায় মোট ২৮ লাখ ৩৪ হাজার ২৫৭ টাকার ক্ষতি হয়। দুর্ঘটনায় জন্য এসএসএই/ওয়ে কুলাউড়া মো. জুলহাস এবং মেট গ্যাং সাইফুল আলমকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। এদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হচ্ছে। এ সময় দুর্ঘটনারোধে ৭ দফা সুপারিশ করা হয়েছে।

বৈঠকে রেলপথ মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি ও ম্যুরাল এবং সংক্ষিপ্ত জীবনী মার্বেল পাথরে লিপিবদ্ধ করে স্টেশনগুলোর দর্শনীয় স্থানে স্থাপনের সুপারিশ করা হয়। এ ছাড়া গাজীপুরের ধীরাশ্রম কন্টেইনার টার্মিনাল নির্মাণের কাজ দ্রুত সম্পন্ন করার তাগিদ দেওয়া হয়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা