kalerkantho

শুক্রবার । ১৫ নভেম্বর ২০১৯। ৩০ কার্তিক ১৪২৬। ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

কালের কণ্ঠের নাম ভাঙিয়ে প্রতারণা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ২২:০৩ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



কালের কণ্ঠের নাম ভাঙিয়ে প্রতারণা

ভিজিটিং কার্ডে দৈনিক কালের কণ্ঠের লোগো, মাস্টহেড ও ঠিকানা। নামেও মিল আছে কালের কণ্ঠের একজন সাংবাদিকের। তবে পুরো বিষয়টিই প্রতারণা। কালের কণ্ঠের লোগো ও ঠিকানার সঙ্গে নিজের নাম ও ফোন নম্বর জুড়ে দিয়ে ভিজিটিং কার্ড তৈরি করেছে এক প্রতারক। ওই কার্ড ব্যবহার করে বিভিন্ন দপ্তরে ব্যক্তিগত তদবির করে চলেছে ওই ব্যক্তি।

বিভিন্ন স্থান থেকে আসা অভিযোগের প্রেক্ষিতে খোঁজ নিয়ে জানা যায়, মো. মেহেদী হাসান নামে এক ব্যক্তি নিজেকে কালের কণ্ঠের সাংবাদিক ও লেখক নামে পরিচয় দিচ্ছেন। বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে দেওয়া তার ভিজিটিং কার্ডের সঙ্গে কালের কণ্ঠের ভিজিটিং কার্ডের কোনো মিল নেই। 

ইংরেজিতে তিনি নিজের নাম লিখেছেন ’Md. Mahedhi Hasan', পদবি লিখেছেন 'সিনিয়র ইন্টারন্যাশনাল রিপোর্টার।' মোবাইল নম্বর ০১৭৪০২৩৫২৮৪ ও ০১৭৩০৭১৭৪৪৯, ইমেইল: [email protected], [email protected]

কালের কণ্ঠের অফিসের প্রকৃত ঠিকানা, ফোন ও ইমেইল নম্বর কার্ডে ব্যবহারের পাশাপাশি নিজের আরেকটি পদবি হিসেবে লিখেছেন- 'চেয়ারম্যান, বাংলাদেশ লিগ্যাল এইড সেন্টার (বাসক)।'

কালের কণ্ঠের পরিচয় দিয়ে বিভিন্ন অফিসে যাতায়াতকারী ওই প্রতারকের ছবিও কালের কণ্ঠ কর্তৃপক্ষের কাছে এসেছে। 

কালের কণ্ঠ কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, কালের কণ্ঠ কার্যালয়ে বাংলাদেশ লিগ্যাল এইড সেন্টার নামে কোনো প্রতিষ্ঠান নেই। সিনিয়র ইন্টারন্যাশনাল করেসপন্ডেন্ট নামে কালের কণ্ঠের কোনো পদও নেই।

কালের কণ্ঠের রিপোর্টিং বিভাগে মেহেদী হাসান নামে একজন বিশেষ প্রতিনিধি কর্মরত আছেন। তিনি কূটনৈতিক বিটে কাজ করেন। কিন্তু তাঁর পুরো নাম, নামের ইংরেজি বানান, ফোন নম্বর ও ইমেইল ঠিকানার সঙ্গে তাঁর নাম ব্যবহার করা প্রতারকের নামের বানান, ফোন নম্বর ও ইমেইল ঠিকানার কোনো মিল নেই। 

কালের কণ্ঠের পরিচয় দেওয়া ওই প্রতারকের পাসপোর্টের (পাসপোর্ট নম্বর বিকে ০৯২৭৫২৯, ইস্যুর তারিখ ১৮ মে ২০১৬, মেয়াদোত্তীর্ণের তারিখ: ১৭ মে ২০২১) প্রতিলিপিও কালের কণ্ঠের হাতে এসেছে। সেখানে তাঁর নাম উল্লেখ রয়েছে MOHAMMAD MAHEDHI HASAN, জাতীয় পরিচয়পত্র নম্বর ০১৯৯৪৭৮১৭৬৫৪০১৩৩৩৫, পিতা: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম, মাতা: নাসিমা বেগম, ঠিকানা: বাজিতা, মির্জাগঞ্জ, পটুয়াখালী)। 

সম্প্রতি তিনি ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প ফাউন্ডেশনে কালের কণ্ঠ পত্রিকার রিপোর্টার বলে পরিচয় দেন। সেখানকার এক কর্মকর্তা কালের কণ্ঠের এক রিপোর্টারকে বিষয়টি জানান। সেখানেও তিনি দৈনিক কালের কণ্ঠ পত্রিকার সিনিয়র ইন্টারন্যাশনাল রিপোর্টার হিসাবে পরিচয় দেন। পাশাপাশি তিনি বাংলাদেশ লিগ্যাল এইড সেন্টারের চেয়্যারমান হিসাবেও পরিচয় দেন। দেশের বাইরে ডাক্তার দেখাতে যাবেন বলে তিনি বিভিন্ন স্থানে এই ভিজিটিং কার্ড দেখিয়ে আনুকূল্য পেতে চেষ্টা করছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ বিষয়ে কালের কণ্ঠ কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থার প্রস্তুতি নিচ্ছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা