kalerkantho

শনিবার । ২৪ আগস্ট ২০১৯। ৯ ভাদ্র ১৪২৬। ২২ জিলহজ ১৪৪০

গুরুত্বপূর্ণ অফিসগুলোতে চুরি করাই তাদের কাজ

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ জুলাই, ২০১৯ ১৫:০৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



গুরুত্বপূর্ণ অফিসগুলোতে চুরি করাই তাদের কাজ

একজন উবার চালক, আরেকজন একটি ট্রেনের এটেনডেন্স। এরা দুজন রাজধানীর বিভিন্ন এলাকা ঘুরে ঘুরে গুরুত্বপূর্ণ অফিসের তথ্য সংগ্রহ করে। পরবর্তী সময়ে আরো তিনজন পার্টনারকে সঙ্গে নিয়ে ওইসব অফিসে ঢুকে সুকৌশলে তালা ভেঙে চুরি করে থাকে। দীর্ঘ ১৫ বছর যাবত দেশের বিভিন্ন এলাকায় প্রায় ২০০ এর অধিক চুরি করেছে। 

রবিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে রাজধানীর বংশাল থানা এলাকায় বিশেষ অভিযান চালিয়ে চোরাইমাল ও চোরাই কাজে ব্যবহৃত সরঞ্জামাদিসহ গ্রিলকাটা ও তালাকাটা চোর চক্রের পাঁচ সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের গোয়েন্দা-উত্তর বিভাগের উত্তরা জোনাল টিম।

গ্রেফতারকৃতরা হলো- মোঃ বদরুল হক ওরফে নাসির, মোঃ জামাল উদ্দিন, মোঃ মফিজুর রহমান, মোঃ মমিনুল ইসলাম ও মোঃ রাহাদ সরকার। এ সময় তাদের হেফাজত হতে চোরাইকৃত ৫টি ল্যাপটপ, নগদ ১ লক্ষ ৯০ হাজার টাকা, চোরাই কাজে ব্যবহৃত ২টি প্রাইভেটকার, তালা ভাঙার ১টি সিলাইরেঞ্জ, ২টি স্ক্রু ড্রাইভার, ১টি হেক্সো ব্লেড, ১টি প্লাস ও ১টি কেচি উদ্ধার করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃতরা জানায়, তারা ২/৩ বছর যাবত রাজধানীর উত্তরা, ধানমন্ডি, কলাবাগান ও রমনা এলাকার বিভিন্ন কর্পোরেট অফিসে ঢুকে সুকৌশলে ডিজিটাল লক খুলে চুরি করে থাকে। 

গ্রেফতারকৃত মোঃ মফিজুর রহমান একজন উবার চালক এবং মোঃ মমিনুল ইসলাম সোনার বাংলা ট্রেনের এটেনডেন্স। তারা দুজন ঘুরে ঘুরে বিভিন্ন অফিসের তথ্য সংগ্রহ করে। পরবর্তী সময়ে গ্রেফতারকৃতরা একত্রিত হয়ে উক্ত চুরি করে। 

জিজ্ঞাসাবাদে তারা আরো জানায়, দীর্ঘ ১৫ বছর যাবত তারা দেশের বিভিন্ন এলাকায় প্রায় ২০০ এর অধিক চুরি করেছে। 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা