kalerkantho

শুক্রবার । ২৩ আগস্ট ২০১৯। ৮ ভাদ্র ১৪২৬। ২১ জিলহজ ১৪৪০

সংসদ ভবন দেখলেন-জানলেন ডিসিরা

জনগণের দোরগোড়ায় সরকারি সেবা পৌঁছে দিতে হবে : ডেপুটি স্পিকার

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৮ জুলাই, ২০১৯ ২০:২৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



জনগণের দোরগোড়ায় সরকারি সেবা পৌঁছে দিতে হবে : ডেপুটি স্পিকার

জনগণের দোরগোড়ায় সরকারি সেবা পৌঁছে দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন ডেপুটি স্পিকার অ্যাডভোকেট মো. ফজলে রাব্বী মিয়া। তিনি দেশের স্বার্থকে অগ্রাধিকার দিয়ে কাজ করার জন্য বিভাগীয় কমিশনার ও জেলা প্রশাসকদের (ডিসি) কাজ করারও আহবান জানান।

বৃহস্পতিবার বিকেলে জাতীয় সংসদ ভবনের শপথ কক্ষে জেলা প্রশাসক সম্মেলনে অংশগ্রহণকারী প্রতিনিধিদের সঙ্গে এক বৈঠকে তিনি এই আহ্বান জানান। বৈঠকে প্রধান হুইপ নূর-ই আলম চৌধুরী, হুইপ আতিউর রহমান আতিক, হুইপ ইকবালুর রহিম, হুইপ সামশুল হক চৌধুরী, জাতীয় সংসদ সচিবালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত সচিব আ ই ম গোলাম কিবরিয়া এবং সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। বৈঠকে স্বাগত বক্তব্য রাখেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব এম শফিউল আলম এবং ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার জয়নুল বারী ও বরগুনার জেলা প্রশাসক মোস্তাইন বিল্লাহ।

এ সময় ডেপুটি স্পিকার বলেন, সরকারের নীতিনির্ধারকদের সঙ্গে মাঠপর্যায়ে নীতি বাস্তবায়নে জেলা প্রশাসক ও বিভাগীয় কমিশনারদের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। এ জন্য জেলা প্রশাসন কর্মকর্তাদের দক্ষতা ও দায়িত্বশীলতা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তিনি বলেন, জেলা প্রশাসকদের মাধ্যমে সরকারের নীতি প্রতিষ্ঠা পেয়ে থাকে। তাই ডিসিদের অবশ্যই জেলার অন্যান্য কর্মকর্তাদের সাথে কাজের সমন্বয় তরতে হবে। একইসঙ্গে জনগণের মৌলিক অধিকার পূরণে সামাজিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে।

অ্যাডভোকেট মো. ফজলে রাব্বী মিয়া বলেন, আইন বিভাগের সাথে নির্বাহী বিভাগের সমন্বয় খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কারণ আইন প্রণয়নের পর সেটি মাঠ পর্যায়ে বাস্তবায়ন করেন কর্মকর্তারা। জনপ্রতিনিধিদের সহযোগিতায় জেলা প্রশাসকদের দায়িত্বশীল ভূমিকার মাধ্যমে অচিরেই জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের সোনার বাংলা প্রতিষ্ঠিত হবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

বৈঠকে প্রধান হুইপ নূর-ই আলম চৌধুরী বলেন, মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের দায়িত্বশীল ভূমিকা দেশের উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছেন। তারাই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়ন কার্যক্রম এগিয়ে নিচ্ছেন। জনগণের স্বার্থে সকলকে আরো বেশী দায়িত্বশীল হওয়ার আহ্বান জানান তিনি।

বৈঠকের শুরুতে জাতীয় সংসদ সচিবালয়ের পক্ষ থেকে জাতীয় সংসদের স্থাপত্য শৈলী ও সংসদ কার্যক্রমের উপর একটি পাওয়ার পয়েন্ট উপস্থাপনা করা হয়। বৈঠক শেষে জেলা প্রশাসক সম্মেলনে অংশগ্রহণকারী প্রতিনিধিরা জাতীয় সংসদ ভবন ঘুরে দেখেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা