kalerkantho

রবিবার । ১ কার্তিক ১৪২৮। ১৭ অক্টোবর ২০২১। ৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

মসজিদুল হারামের ইমাম ছিলেন শায়খ আলী সাবুনি

অনলাইন ডেস্ক   

২০ মার্চ, ২০২১ ১১:৫৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মসজিদুল হারামের ইমাম ছিলেন শায়খ আলী সাবুনি

শায়খ মুহাম্মদ আলী সাবুনি

সিরিয়ার বিখ্যাত আলেম ও তাফসিরবিশারদ শায়খ মুহাম্মদ আলী সাবুনি ইন্তেকাল করেছেন। গতকাল শুক্রবার (১৯ মার্চ) জুমার আগে তুরস্কের ইয়ালোভা শহরে ৯১ বছর বয়সে তিনি মারা যান।

আজ শনিবার (২০ মার্চ) ইস্তাম্বুলের সুলতান মুহাম্মাদ ফাতেহ মসজিদ প্রাঙ্গণে জানাজার নামাজ অনুষ্ঠিত হবে। শায়খ মুহাম্মাদ আলী সাবুনির ফেসবুক পেজ থেকে এ তথ্য জানানো হয়েছে। 

মুহাম্মাদ আলি সাবুনি মক্কার উম্মুল কোরা বিশ্ববিদ্যালয়ের শরিয়াহ বিষয়ে দীর্ঘ ২৮ বছর যাবত অধ্যাপনা করেন। এ সময় তিনি পবিত্র মসজিদুল হারামে তারাবিহ নামাজের ইমাম হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। 

হারামাইন শরিফাইন ওয়েবসাইটে বলা হয়, ১৩৮৫ হিজরি রমজান মাসে মুহাম্মাদ আলি সাবুনি মসজিদুল হারামে তারাবিহ নামাজে অতিথি ইমাম হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। 

পবিত্র কোরআনের তাফসির বিষয়ে লিখিত তাঁর অনবদ্য রচনা ‘সাফওয়াতুত তাফাসির’  বিশ্বব্যাপী সমাদৃত। শরিয়াহ আইন, ফিকাহ ও তাফসিরসহ ইসলামী জ্ঞানের নানা বিষয়ে গভীর পাণ্ডিত্বের অধিকারী ছিলেন তিনি। 

মুহাম্মাদ আলী সাবুনি ১৯৩০ সালে সিরিয়ার হালব শহরে জন্মগ্রহণ করেন। নিজ পিতা হালবের প্রখ্যাত আলেম শায়খ জামিল সাবুনির কাছে প্রাথমিক পাঠ সম্পন্ন করেন। সিরিয়া সরকারের ওয়াকফ মন্ত্রণালয় থেকে বিশ্ববিখ্যাত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান আল-আজহারে উচ্চশিক্ষা অর্জনের জন্য মিসর পাড়ি জমান। ১৯৫২ সালে শরিয়া বিষয়ে উচ্চশিক্ষা সম্পন্ন করেন। ১৯৫৪ সালে শরয়ি বিচার বিষয়ে উচ্চতর ডিগ্রি লাভ করেন।

১৯৬২ সালে সিরিয়ার হালবে উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের ইসলামী সংস্কৃতি বিষয়ে অধ্যাপনা শুরু করেন। অতঃপর সৌদি সরকারের আমন্ত্রণে মক্কা বিশ্ববিদ্যালয়ের (বর্তমান উম্মুল কোরা বিশ্ববিদ্যালয়) শরিয়াহ বিষয়ে দীর্ঘ ২৮ বছর অধ্যাপনা করেন। 

২০০৭ সালে শ্রেষ্ঠ ইসলামী ব্যক্তিত্ব হিসেবে আমিরাতের সর্বোচ্চ পুরস্কার ‘দুবাই ইন্টারন্যাশনাল হলি কোরআন অ্যাওয়ার্ড’ লাভ করেন। 

সূত্র : হারামাইন ওয়েবসাইট

Former Guest Imam of Masjid Al Haram, Makkah Sheikh Muhammad Ali al Sabuni has passed away ‎انا لله وانا إليه راجعون

Posted by Haramain Sharifain on Friday, March 19, 2021


সাতদিনের সেরা