kalerkantho

রবিবার । ৯ মাঘ ১৪২৮। ২৩ জানুয়ারি ২০২২। ১৯ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

প্রতিবেশীর সঙ্গে ফেসবুকে ঝগড়া করে বরিশালে বাবা-মেয়ে কারাগারে

অনলাইন ডেস্ক   

১৮ নভেম্বর, ২০২১ ১৫:০৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



প্রতিবেশীর সঙ্গে ফেসবুকে ঝগড়া করে বরিশালে বাবা-মেয়ে কারাগারে

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় বরিশালে বাবা ও মেয়েকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। বৃহস্পতিবার (১৮ নভেম্বর) দুপুরে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা কোতোয়ালি মডেল থানার উপপরিদর্শক (এসআই) শাহজালাল মল্লিক এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। এর আগে বুধবার (১৮ নভেম্বর) নির্ধারিত দিনে বরিশালের অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির হলে বিচারক মো. মাসুম বিল্লাহ্ জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে এ রায় দেন।
আসামিরা হলেন- নগরীর ২১ নম্বর ওয়ার্ড পুরাতন পাসপোর্ট অফিস লেনের এম এ জলিল সড়কের বাসিন্দা এ বি এম সালাউদ্দিন আহম্মেদ ও তার মেয়ে সৈয়দা সাবিকুন নাহার তুবা।

বিজ্ঞাপন

জানা গেছে, নগরীর ২১ নম্বর ওয়ার্ড পুরাতন পাসপোর্ট অফিস লেনের এম এ জলিল সড়কের বাসিন্দা খোর্শেদুল আলম সুজন দীর্ঘদিন বিদেশে থাকার সুবাদে তার পরিবারকে বিভিন্নভাবে উত্ত্যক্ত করত প্রতিবেশী এ বি এম সালাউদ্দিন আহম্মেদের পরিবার।

এ নিয়ে ২০২০ সালের ৪ জুন উভয় পরিবারের মধ্যে বাগবিতণ্ডা হলে সালাউদ্দিন আহম্মেদ ও তার মেয়ে সৈয়দা সাবিকুন নাহার তুবা তাদের ফেসবুক আইডি থেকে সুজন ও তার স্ত্রী হাসির ছবি ব্যবহার করে কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পোস্ট করেন। পোস্ট সরিয়ে ফেলতে অনুরোধ করলেও উল্টো গালিগালাজ করেন বলে জানান সুজন। পরে ২০২১ সালের ১০ জানুয়ারি সুজনের স্ত্রী ফজিলাতুন নেসা হাসি বাদী হয়ে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে সালাউদ্দিন আহম্মেদ ও তার মেয়ে সাবিকুন নাহারের বিরুদ্ধে কোতোয়ালি মডেল থানায় মামলা করেন।

এ বিষয়ে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা কোতোয়ালি মডেল থানার উপপরিদর্শক (এসআই) শাহজালাল মল্লিক জানান, বাবা-মেয়েকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট দাখিল করেন তিনি। বুধবার (১৭ নভেম্বর) বাবা-মেয়ে আদালতে হাজির হয়ে জামিন আবেদন করলে আদালত জামিন নামঞ্জুর করে জেলহাজতে পাঠান।



সাতদিনের সেরা