kalerkantho

মঙ্গলবার । ৮ আষাঢ় ১৪২৮। ২২ জুন ২০২১। ১০ জিলকদ ১৪৪২

নদীতে মাটি খুঁড়ে খাবার পানি সংগ্রহ করে তারা!

অনলাইন ডেস্ক   

১৮ মার্চ, ২০২১ ১১:১৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নদীতে মাটি খুঁড়ে খাবার পানি সংগ্রহ করে তারা!

ভারতের ছত্তিসগড়ে বলরামপুর জেলার কাছের এক গ্রামের বাসিন্দাদের খাবার পানির জন্য প্রতিদিন লড়াই করতে হয়। সারা বছর দূষিত পানি পান করতে বাধ্য হয় তারা।

যে নদী থেকে গ্রামবাসীরা পানি সংগ্রহ করে পান করেন, সেই নদী থেকেই পানি পান করে গবাদি পশু ও বন্য প্রাণীরাও।
 
স্থানীয় প্রশাসন উন্নতির সুরে হাজার রকমের কথা বলে। অথচ উন্নয়ন যে কতটা হয়, তার জ্বলজ্যান্ত উদাহরণ হতে পারে বলরামপুরের চর্চরী গ্রাম। 

ওই গ্রামের আগ্রিয়া পাড়ায় প্রায় ৪০-৫০ জন মানুষ বাস করেন। তাদের খাবার পানির একমাত্র উপায় হলো গ্রামের নদী খুঁড়ে সংগ্রহ করা পানি।

ওই নদী থেকে শুধু দূষিত পানি পাওয়া যায়। গ্রামবাসী প্রতিদিন নদীতে গর্ত বানিয়ে নেয়। এরপর সেই গর্ত থেকে পানি তোলে আবার সেই পানিই পান করে। 

ওই পানি পান করে শিশুরা প্রায়ই অসুস্থ হয়ে পড়ে। তবে গ্রামবাসীর কাছে আর কোনো উপায় নেই, তারা ওই পানি পান করতেই বাধ্য।

গ্রামবাসীর অভিযোগ, নেতারা শুধু ভোট চাইতে আসে, তারপর সবাই ভুলে যায়। প্রশাসন শুধুই ফাঁকা প্রতিশ্রুতি দেয়। অথচ গ্রামের বাসিন্দারা তিন প্রজন্ম ধরে দূষিত পানি পান করে আসছেন। অনেক সরকার এসেছে-গেছে কিন্তু এই গ্রামের অবস্থার কোনো পরিবর্তন হয়নি।

পঞ্চায়েতের একজন কর্মকর্তা জানান, গ্রামবাসী যে নদীর পানি পান করছে, তা তিনি জানতেন না। গ্রামবাসী যেন ভালো পানি পেতে পারে সেজন্য শিগগিরই নলকূপ বসানো হবে।

সূত্র: কলকাতা টোয়েন্টিফোর



সাতদিনের সেরা