kalerkantho

রবিবার । ২২ চৈত্র ১৪২৬। ৫ এপ্রিল ২০২০। ১০ শাবান ১৪৪১

করোনার বিরুদ্ধে শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ান ৪ উপায়ে

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৪ মার্চ, ২০২০ ১৭:০৪ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



করোনার বিরুদ্ধে শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ান ৪ উপায়ে

প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের আক্রমণ থেকে বাঁচতে শরীরের ইমিউন সিস্টেম তথা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোয় জোর দিচ্ছেন স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা। কেননা এখন পর্যন্ত এর কোনো ওষুধ নেই। জেনে নিন ৪টি উপায়...

১. ভালো ঘুম
দিন-রাত্রির যে চক্র (সারকাডিয়ান সার্কেল) তা ইমিউন সিস্টেমে  গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। রাতের ঘুমের প্রথম প্রহরে টি-কোষ এবং সাইটোকিনের পরিমাণ চূড়ান্ত পর্যায়ে পৌঁছে থাকে। টি-কোষ হচ্ছে  রক্তের সে ধরনের শ্বেতকনিকা যেগুলো ব্যাকটেরিয়া-ভাইরাসের বিরুদ্ধে শরীরের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থাকে শানিত করে এবং সাইটোকিন এসবের বিরুদ্ধে যুদ্ধে প্রদাহমূলক প্রতিক্রিয়ার সূচনা করে।

২. দীর্ঘস্থায়ী মানসিক চাপ কমিয়ে রাখুন
দীর্ঘ দিন মানসিক চাপে থাকলে দীর্ঘস্থায়ী প্রদাহের সৃষ্টি হয় এবং অটো-ইমিউন রোগ সৃষ্টি করে। স্ট্রেস হরমোন হচ্ছে কর্টিসল– এটি সাইটোকিন তৈরি করে যা ইমিউনিটিকে ক্ষতিগ্রস্ত করে।

৩. নিয়মিত ব্যায়াম করুন
শরীর চর্চা শুধু মানসিক চাপ কমায় তা নয়, এটি ইমিউন সিস্টেমকেও প্রতিরক্ষা দিয়ে থাকে। Aging cell- জার্নালে প্রকাশিত এক গবেষণা নিবন্ধে দেখানো হয়েছে যে, যথেষ্ট পরিমাণে ব্যায়াম বা শরীর চর্চা বা কায়িক শ্রম ইমিউন সিস্টেমের ক্ষয় প্রতিহত করে।

৪. ভিটামিন-সমৃদ্ধ খাবার খান

ভিটামিন এ
ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিহত করতে ভিটামিন-এ তাৎপর্যপূর্ণ ভূমিকা রাখে। কডলিভার অয়েল বা ভিটামিন-এ ক্যাপসুল প্রাকৃতিক ওষুধ হিসেবে বহুল ব্যবহৃত। হাম (মিজলস) চিকিৎসায় এর সফল ব্যবহার রয়েছে। ভিটামিন-এ পাবেন যেসব খাবারে সেগুলো- মিষ্টি আলু, সবুজ শাকসবজি, লাল মরিচ, গাজর, লাউ, ফুটি/খরমুজ, পেঁপেঁ, আম, লেটুস, গুড়া লঙ্কা, এপ্রিকট ইত্যাদিতে। তীব্র প্রদাহের সময় স্বল্প সময়ের জন্য শিরায় ভিটামিন-এ ইনজেকশন দেয়া হয়ে থাকে।

ভিটামিন সি
যাঁদের রোগপ্রতিরোধ ক্ষমতা ভালো নয় এবং মাঝে মধ্যেই রোগে ভোগেন, তাঁরা নিয়মিত ভিটামিন সি খেলে কয়েকদিনের মধ্যেই পরিবর্তন বুঝতে পারবেন। তবে ভিটামিন সাপ্লিমেন্টের দিকে না গিয়ে রোজকার খাবারে এমন শাক-সবজি-ফল রাখুন যা ভিটামিন সি-তে ভরপুর। এই তালিকায় রয়েছে কমলালেবু, আঙুর, স্ট্রবেরি, বেলপেপার, পালং শাক, ব্রকলি, পাতিলেবু।

ভিটামিন বি ৬
শরীরের রোগপ্রতিরোধ ব্যবস্থায় বায়োকেমিকাল রিঅ্যাকশন নিয়ন্ত্রণে রাখার জন্যে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভিটামিন বি ৬। চিকেন, স্যামন, টুনা, সবুজ শাক সবজি, চানা ডালে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন বি ৬ রয়েছে।

ভিটামিন ই
ভিটামিন ই শক্তিশালী অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যা ভাইরাস সংক্রমণের সঙ্গে লড়াইয়ের ক্ষমতা বাড়ায়। আমন্ড, কাজু, আখরোট, চিনেবাদাম, পালং শাকের মতো খাবারে প্রচুর পরিমাণে এই ভিটামিন রয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা