kalerkantho

রবিবার । ০৮ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১০ রবিউস সানি ১৪৪১     

অধূমপায়ীদের জন্য বছরে ৬ দিন বাড়তি ছুটি!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২ ডিসেম্বর, ২০১৯ ১৯:৩৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



অধূমপায়ীদের জন্য বছরে ৬ দিন বাড়তি ছুটি!

যারা ধূমপান করেন, তাদের কাজের ফাঁকেই বিরতি নিতে হয়। যেটা স্বাভাবিকভাবে পান না যারা ধূমপান থেকে বিরত থাকেন। এই নিয়ে অনেকে কর্মীর মধ্যেই অভিযোগ থাকে। আর সেটারেই বাস্তবায়ন হয়েছিল একটি কম্পানির সাজেশন বক্সে। আর তার ফলেই ধূমপান না করার জন্য বড় সুবিধা দিচ্ছে এক কম্পানি!

জাপানে টোকিও’র ‘পিয়ালা ইনকর্পোরেটেড’ নামে একটি মার্কেটিং ফার্মের এক কর্মী অভিযোগ করেন, সংস্থায় কর্মরত ধূমপায়ী কর্মীদের থেকে বেশি কাজ করেন অধূমপায়ীরা। কারণ যারা ধূমপান করেন, তারা একাধিক বার ধূমপানের জন্য বিরতি নেন। যা অধূমপায়ীরা পান না।

পিয়ালা ইনকর্পোরেটেডের মুখপাত্র হিরোতাকা মাতসুসিমা জানান, সংস্থার এক কর্মী সাজেশন বক্সে একটি চিঠি ফেলেন। সেখানে তিনি লেখেন, ধূমপানের বিরতির জন্য অফিসে সমস্যা তৈরি হচ্ছে। সেই বার্তা পৌঁছে যায় কম্পানিটির প্রধান কর্মকর্তা তাকায়ো আসুকা’র কাছে। তিনিও বিষয়টির সঙ্গে সহমত পোষণ করেন। তার পরই সংস্থা সিদ্ধান্ত নিয়েছে, যারা ধূমপানের জন্য বিরতি নেন না, তাদের জন্য বছরে অতিরিক্ত ছুটির ব্যবস্থা করা হবে।

টোকিয়োর পিয়ালা ইনকর্পোরেটেডের অফিস একটি বিল্ডিংয়ের ২৯ তলায়। বিল্ডিংয়ে ধূমপান করা নিষেধ। তাই ধূমপায়ীদের লিফ্টে করে নিচে যেতে হয়। একটি রিপোর্টে দেখা গিয়েছে, প্রতিবার ধূমপানের জন্য গড়ে ১৫ মিনিট বিরতি নিতে হয়। ফলে একদিনে কাজের সময় কেউ যদি চার বার ধূমপানের বিরতি নেন তবে তিনি গড়ে এক ঘণ্টা অতিরিক্ত বিরতি পাচ্ছেন। ফলে প্রায় এক ঘণ্টা তিনি অধূমপায়ীদের থেকে কম কাজ করছেন।

কম্পানির সিইও তাকায়ো জানান, যারা ধূমপানের বিরতি নেন না তাদের বছরে ছয়দিন অতিরিক্ত ছুটি দেওয়া হবে। হতে পারে এই সিদ্ধান্তের ফলে কম্পানির অনেক কর্মী ধূমপান ছেড়ে দিতে পারেন।

সূত্র: আনন্দবাজার।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা