kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৪ নভেম্বর ২০১৯। ২৯ কার্তিক ১৪২৬। ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

মাত্র এক মিটার চওড়া ভবন, নির্মাণের কারণ জানলে অবাক হবেন

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৭ অক্টোবর, ২০১৯ ১৭:০৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মাত্র এক মিটার চওড়া ভবন, নির্মাণের কারণ জানলে অবাক হবেন

বাইরে থেকে দেখে যে কারো মনে হতে পারে, এটি দেয়াল। তবে কাছে গিয়ে খেয়াল করলে বোঝা যায়, এই ‘দেয়াল’ বসবাসেরও যোগ্য। ভবনটি রয়েছে লেবাননে। বিশ্বের সবচেয়ে সরু বাড়ি এটি। তটাই সরু যে, একে দেয়াল বলে ভুল করাটা একেবারেই আশ্চর্যজনক নয়।

লেবাননের বেইরুটের পুরনো লাইট হাউসের কাছে অবস্থিত এই বাড়ি। বাড়ির উচ্চতা ১৪ মিটার এবং চওড়ায় মাত্র এক মিটার। দুই ভাইয়ের শত্রুতার জেরেই নাকি এই বাড়ি তৈরি হয়েছিল।

জানা গেছে, সরু বাড়িটা এবং তার ঠিক পিছনেই যে বড় বাড়ি রয়েছে, এই দুই বাড়ি দুই ভাইয়ের। পেছনের বাড়িটার সি-ভিউ আটকাতেই ঠিক তার সামনে এই সরু বাড়ি নির্মাণ করেন আরেক ভাই।

বাড়িটা তৈরি হয়েছিল ১৯৫৪ সালে। বাবার সম্পত্তি হস্তান্তর হয়েছিল ওই দুই ভাইয়ের মাঝে। কিন্তু তখন শুধু ফাঁকা জমি ছিল। জমিটার অনেক অংশ স্থানীয় প্রশাসন বিভিন্ন কাজে দখল করে নিয়েছিল। ফলে জমিটার আকার বদলে গিয়েছিল। জমিটা দুই ভাই কীভাবে নিজেদের মধ্যে ভাগ করে নেবেন, তা নিয়ে দীর্ঘ টানাপড়েনও চলে।

এক ভাই পিছনের বড় বাড়িটা তৈরি করে ফেলেন। শুরু করেন হোটেল ব্যবসা। জমিটার অবস্থান খুব সুন্দর। সামনে রাস্তা আর তার ওপারেই সমুদ্র। এরকম একটা লোকেশনে হোটেল, দারুণ চলতে শুরু করে।

সেটা সহ্য হয়নি অন্য ভাইয়ের। ভাইয়ের ব্যবসার লাগাম টেনে ধরার জন্য এবং তার হোটেলের সি-ভিউ আটকানোর জন্য অভিনব পরিকল্পনা করেন তিনি। ওই হোটেলের সামনে যেটুকু জমি ছিল, তাতেই অদ্ভুত আকারের একটি বাড়ি বানিয়ে ফেলেন তিনি।

দেয়াল আকৃতির ওই বাড়িটার প্রতিটি ফ্লোরে দু'টি করে ঘর রয়েছে। এক সময় ওই বাড়ি যৌনকর্মীরা ব্যবহার করলেও পরে শরণার্থী শিবির হিসেবে কাজে লাগানো হতো।

বর্তমানে বাড়িটা বেআইনি হিসাবে চিহ্নিত করা হয়েছে। বাড়িটিতে কোনো বাসিন্দা নেই। খালি পড়ে রয়েছেটা। ভবিষ্যতে কী হবে তা নিয়ে চিন্তাভাবনা করছে স্থানীয় প্রশাসন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা