kalerkantho

মঙ্গলবার । ২২ অক্টোবর ২০১৯। ৬ কাতির্ক ১৪২৬। ২২ সফর ১৪৪১              

'স্বভাব যায় না মরলে!' (ভিডিওসহ)

সত্যজিৎ কাঞ্জিলাল    

২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ১৭:৫০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



'স্বভাব যায় না মরলে!' (ভিডিওসহ)

ফুট ওভারব্রিজ থাকতেও নিচ দিয়েই রাস্তা পার হচ্ছে কিছু মানুষ! ছবি : কালের কণ্ঠ

আবরারের কথা মনে আছে? না থাকার কোনো কারণ নেই। গত মার্চে রাজধানীর কুড়িলে বাসচাপায় নিহত হয়েছিলেন বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসের (বিইউপি) শিক্ষার্থী আবরার আহমেদ চৌধুরী। তার মৃত্যু ঘিরে দ্বিতীয়বারের মতো গড়ে উঠেছিল নিরাপদ সড়ক আন্দোলন। সে সময় ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম তিন মাসের মধ্যে ওই এলাকায় একটি ফুটওভারব্রিজ নির্মাণের ঘোষণা দেন। কিন্তু অনেক কালক্ষেপণ শেষে সপ্তাহ দুয়েক আগে চালু হয় ফুট ওভারব্রিজটি। এতে ওই স্থানের রাস্তা পারাপার নিরাপদ হয়ে যায়।

কিন্তু নিরাপদ বললেই কি সেটা সবার জন্য? যমুনা ফিউচার পার্কের সামনের ওই রাস্তাটি রাজধানীর ব্যস্ততম একটি সড়ক। পাশাপাশি প্রতিমুহূর্তে অসংখ্য মানুষ রাস্তা পারাপার হয়। ছোটখাট দুর্ঘটনা প্রতিদিনই ঘটত। গত ১৯ মার্চ সুপ্রভাত পরিবহনের একটি বেপরোয়া বাসের চাপায় আবরার নিহত হওয়ার পর ফুটওভারব্রিজ নির্মিত হয়। এতে মানুষ পারাপারের জন্য এতদিন যে যানজট ছিল, সেটাও কমে যায়। কিন্তু কিছু মানুষের স্বভাব যায় না। যে কারণে ফুট ওভারব্রিজ থাকতেও তারা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে নিচ দিয়েই রাস্তা পার হন! নিয়ম-কানুনের তোয়াক্কা করতে তারা খুব একটা পছন্দ করেন না।

আজ রবিবার সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, অসংখ্য মানুষ ফুট ওভারব্রিজ দিয়ে রাস্তা পার হচ্ছেন। তারা সবাই এই ব্রিজটি নির্মাণের প্রশংসা করেছেন। কিন্তু আলোর নিচেই অন্ধকার। রাস্তার মাঝখানে কিছু অংশে রোড ডিভাইডার না থাকার সুযোগে কিছু মানুষ নিচ দিয়েই রাস্তা পার হচ্ছেন! আপাতত বাঁশ আড়াআড়ি করে দিয়ে ডিভাইডার বন্ধ রাখলেও নিচু হয়ে, চিত হয়ে, বিভিন্ন কসরৎ করে, সেখান দিয়ে রাস্তা পার হচ্ছেন কিছু বিবেকহীন মানুষ! এদের সিংহভাগ তরুণ, যারা কোনো অজুহাতও দেখাতে পারবেন না।

একই স্থানে ট্রাফিক পুলিশকেও দেখা যায় দায়িত্ব পালন করতে। তবে তাদের ব্যারিকেড টপকে রাস্তা পার হওয়া মানুষগুলোর বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নিতে দেখা যায়নি। আইনের সুষ্ঠু প্রয়োগ না হওয়ায় আইন ভাঙা যেন একটা ট্রেন্ড হয়ে গেছে আমাদের দেশে। উক্ত স্থানের ফুটেজ সংগ্রহের সময় তাই এক ভদ্রলোক বলছিলেন, 'আপনারা যতই ছবি তোলেন আর লেখালেখি করেন, এদের স্বভাব মরলেও যাবে না!'

দেখুন ভিডিও:

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা