kalerkantho

রবিবার। ১৮ আগস্ট ২০১৯। ৩ ভাদ্র ১৪২৬। ১৬ জিলহজ ১৪৪০

পুকুরে গোসল করতে গিয়ে আস্ত কুমিরের সামনে দম্পতি, তারপর ...

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৯ জুলাই, ২০১৯ ১৮:৪১ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পুকুরে গোসল করতে গিয়ে আস্ত কুমিরের সামনে দম্পতি, তারপর ...

অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচে গেলেন এক দম্পতি। পুকুরে গোসল করতে গিয়ে বিরাটাকার কুমিরের সামনে পড়ে যান ওই দম্পতি। কোনো রকমে সেখান থেেএক পাড়ে উঠে এসে হাঁফ ছাড়েন তারা। ভারতের দক্ষিণ ২৪ পরগনার পাথরপ্রতিমা ব্লকের কইমুড়ি গ্রামে ঘটনাটি ঘটেছে।

জানা গেছে, বৃহস্পতিবার বাড়ির পাশের পুকুরে গোসল করতে যান অনিমেষ মন্ডল ও তার স্ত্রী শ্রাবন্তী মন্ডল। পুকুরে নেমে দেখতে পান, সামনেই ভাসছে কুমিরের মতো কিছু একটা। তাদের চিৎকারে জড়ো হয়ে যায় গ্রামের লোকজন।

পুকুরে ভাসতে থাকা প্রাণীটিকে প্রথমে গুইসাপ মনে করেন সবাই। কারণ ওই অঞ্চলে গুইসাপের আকার অনেকটাই বড় হয়। সেগুলো দেখতে অনেকটাই কুমিরের মতো। পরে দেখা যায় সেটি গুইসাপ নয়, বরং সাত ফুট লম্বা কুমির।

কিছুক্ষণের মধ্যেই কুমির ধরতে পুকুরে নেমে যান এলাকার লোকজন। খবর দেয়া হয়, রামগঙ্গা রেঞ্জ অফিসে। রাত ৯টা নাগাদ রামগঙ্গা রেঞ্জের লোকজন এসে কুমির ধরার কাজে লেগে যান। জেনারেটর চালু করে শুরু হয় কুমির ধরার কাজ। বহু চেষ্টার পর জালে ধরা পড়ে কুমির। বাঁশ ও বস্তার সঙ্গে জড়িয়ে কুমিরটি নিয়ে যান বন দপ্তরের কর্মীরা। জানা যাচ্ছে সেটিকে ছেড়ে দেয়া হবে ভাগবতপুরে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা