kalerkantho

শনিবার । ৩১ শ্রাবণ ১৪২৭। ১৫ আগস্ট ২০২০ । ২৪ জিলহজ ১৪৪১

'বদমাশ' এর ডাক পড়ল সোশ্যাল মিডিয়ায়

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৭ জুলাই, ২০১৯ ১০:২৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



'বদমাশ' এর ডাক পড়ল সোশ্যাল মিডিয়ায়

২৩০-২২০x০.৫=কত? এই অঙ্কই এখন ঘুরে বেড়াচ্ছে সোশ্যাল সাইটে। অঙ্কটি টুইটারে প্রকাশ করা হয়। কেজে চিতম নামে এক ব্যক্তি এই অঙ্কটি টুইটারে পোস্ট করে নিজেই এর উত্তরটা দিয়ে দেন। লেখেন কেউ বিশ্বাস করবেন না যে এই অঙ্কের উত্তর হবে ৫! এই অঙ্ক ও তার উত্তর দেওয়ার পর সেটি ভাইরাল হয়ে যায় ইন্টারনেটে। সকলেই অঙ্ক কষতে ব্যস্ত হয়ে পড়েন।

নেটিজেনরা মস্তিষ্কে ঝড় তুলে অঙ্কটি কষে ফেলেন। অনেকেই উত্তর পান ১২০। ৫ নয়। আর সেটাই ঠিক। ১২০ হল এই অঙ্কের উত্তর। এখানে অঙ্কের পুরনো রুল 'বদমাশ' ব্যবহার করে উত্তর পাওয়া যাবে বলে জানান অঙ্কের বিশেষজ্ঞেরা। ব্র্যাকেটস, অফ, ডিভিশন, মাল্টিপ্লিকেশন, অ্যাডিশন এবং সাবস্ট্র্যাকশন। সব মিলিয়ে বিওডিএমএএস বা 'বদমাশ'। এই পদ্ধতি ব্যাবহার করেই এই অঙ্কের সমাধান সম্ভব এবং তা মেনে করলে উত্তর হবে ১২০ বলে জানান গণিত বিশেষজ্ঞেরা।

এতকিছুর পরও অবশ্য অনেক নেটিজেনই ১২০-কে উত্তর হিসাবে মেনে নিতে রাজি নন। তাদের দাবি, অঙ্কটি যিনি টুইটারে ছেড়েছেন তিনি যতক্ষণ না তার দেওয়া উত্তর ৫ বদলে ১২০ লিখছেন ততক্ষণ তারা মেনে নেবেন না এই অঙ্কের উত্তর ১২০। কেজে চিতম অবশ্য জানিয়ে দিয়েছেন তিনি এই অঙ্কের কিছু জানেন না। তিনিও পেয়েছিলেন। তাই শেয়ার করেছিলেন। আসলে এই অঙ্ক যে এমন হুলস্থূল ফেলে দেবে তা বোধহয় তিনি কল্পনাও করতে পারেনি। নিছক মজার ছলেই দিয়েছিলেন টুইটারে।

এদিকে এই অঙ্ক সোশ্যাল সাইটে এসে একটা বিষয় ভালো হয়েছে। অনেকেই যাদের বহুদিন অঙ্ক কষার অভ্যাসটা চলে গিয়েছিল, তারা ফের কলম ধরলেন। অঙ্ক কষলেন। মাথা চুলকালেন। কেন মিলছে না উত্তর তা নিয়ে মাথা ঘামালেন! অনেকেরই মনে হল সেই কবে অঙ্ক ছেড়েছেন। না হলে কবেই অঙ্কের সমাধান তুড়ি মেরে করে দিতেন! ভুল, ঠিক পরের কথা। এটা কিন্তু ভাইরাল হয়ে অনেকের মাথা ঘামিয়ে ছাড়ল। ঝালাই হল মগজ। 

সূত্র: নীলকণ্ঠ ডট ইন 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা