kalerkantho

শনিবার । ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১৬ রবিউস সানি               

বাল্যবিবাহের তথ্য দিলেই পাঁচ হাজার টাকা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৬ জুন, ২০১৯ ০৯:১৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বাল্যবিবাহের তথ্য দিলেই পাঁচ হাজার টাকা

প্রতীকী ছবি

রাজবাড়ীতে বাল্যবিবাহ লেগেই আছে। প্রায়ই সংবাদপত্রে খবর আসে বাল্যবিবাহের। বাল্যবিবাহ ঠেকাতে নানা উদ্যোগের খবর চোখে পড়ে। এবার বাল্যবিবাহ প্রতিরোধে এক অভিনব উদ্যোগের তথ্য মিলেছে। বাল্যবিবাহ ঠেকাতে এগিয়ে এসেছেন ফ্রান্সপ্রবাসী ব্যবসায়ী ও রাজবাড়ীর বাসিন্দা মো. আশরাফুল ইসলাম। তাঁর পক্ষ থেকে ঘোষণা এসেছে, বাল্যবিবাহের তথ্য দিলেই তথ্যদাতাকে দেওয়া হবে নগদ পাঁচ হাজার টাকা। বাল্যবিবাহ আয়োজনের খবর পেলেই প্রশাসন বা জনপ্রতিনিধিকে জানাতে হবে। তারাই বাল্যবিবাহ প্রতিরোধে নামবে মাঠে। এমন উদ্যোগে কাজও হচ্ছে। রাজবাড়ীর বেশ কয়েকটি বাল্যবিবাহ প্রতিরোধে ভূমিকা রেখে প্রবাসীর দেওয়া পুরস্কার পেয়েছেন কয়েকজন।

জানা গেছে, কয়েক দিন আগে রাজবাড়ী সদর উপজেলাধীন বরাট ইউনিয়নের ভবদিয়া এলাকার একটি বাল্যবিবাহ বন্ধ করা হয়। ওই বাল্যবিবাহ বন্ধ করতে তথ্য প্রদান করেন রাজু আহম্মেদ নামের এক যুবক। গত শুক্রবার ফ্রান্সপ্রবাসী মো. আশরাফুল ইসলামের পক্ষে সামাজিক সংগঠন ‘আমাদের রাজবাড়ী’র সহযোগিতায় তথ্যদাতাকে পুরস্কৃত করা হয়। এ সময় সদর উপজেলার পাঁচুরিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কাজী আলমগীর, রাজবাড়ী থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার, আমাদের রাজবাড়ী সামাজিক সংগঠনের সহসভাপতি রনি হাসান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এস এম হীরা ও সদস্য আব্দুর রহমান উপস্থিত ছিলেন।

সংগঠনের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এস এম হীরা জানান, তথ্যদাতাকে ফ্রান্সপ্রবাসী আশরাফুল ইসলামের দেওয়া ঘোষণা অনুযায়ী নগদ পাঁচ হাজার টাকা পুরস্কার দেওয়া হয়। সেই সঙ্গে ১৮ বছর না হওয়া পর্যন্ত ওই মেয়েটির লেখাপড়ার খরচ চালানোর দায়িত্বও নিয়েছেন প্রবাসী আশরাফুল ইসলাম। তিনি এর আগেও বাল্যবিবাহের তথ্যদাতাকে পুরস্কৃত করেছেন। তিনি বলেন, বাল্যবিবাহ সমাজের জন্য অভিশাপ। এমন আয়োজনের খবর পেলে তিনি তাৎক্ষণিক প্রশাসন বা জনপ্রতিনিধিদের জানাতে অনুরোধ করেন। সেই সঙ্গে এমন তথ্য জানিয়ে পুরস্কার নেওয়ার আহ্বানও জানান।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা