kalerkantho

শুক্রবার । ২৪ মে ২০১৯। ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ১৮ রমজান ১৪৪০

এক 'ট্যাঙ্ক ম্যান' ভিডিওতে গোটা চীন তোলপাড় (ভিডিওসহ)

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৫ এপ্রিল, ২০১৯ ১৬:৪৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



এক 'ট্যাঙ্ক ম্যান' ভিডিওতে গোটা চীন তোলপাড় (ভিডিওসহ)

ভিডিওটি দেখলে মনে হবে কোনো রোমাঞ্চকর সিনেমা চলছে। চীনের বেইজিংয়ের তিয়ানমেন স্কয়ারে গণতন্ত্রের দাবিতে দাঁড়ানো লাখো মানুষের একজন সেই 'ট্যাঙ্ক ম্যান' বনাম ট্যাংক নিয়ে প্রস্তুত সেনাবাহিনীর আইকনিক ছবি তুলছেন একজন ফটোগ্রাফার। চলছে দমন-পীড়ন। একটা পর্যায়ে বুঝতে পারবেন ভিডিওটি আসলে জার্মানির ক্যামেরা নির্মাণ প্রতিষ্ঠান 'লেইকা ক্যামেরা এজি'র বিজ্ঞাপন। চলতি সপ্তাহে প্রচারিত এই পাঁচ মিনিটের ভিডিও গোটা চীনে তোলপাড় তুলেছে। চাইনিজ সোশ্যাল মিডিয়াতে তুলেছে সমালোচনার ব্যাপক ঝড়। 

আসলে ভিডিওর বিষয়বস্তু হিসেবে দারুণ স্পর্শকাতর এক ঘটনাকে বেছে নেয়া হয়েছে। তিন যুগ আগে তিয়ানমেন স্কয়ারের সেই ঘটনায় ঠিক কতজন নিহত হয়েছিলেন তা আজও জানায়নি চীনের ক্ষমতাসীন কমিউনিস্ট পার্টি। সেই সময়ের দমন-পীড়নের ঘটনা প্রচারের ক্ষেত্রে সোশ্যাল মিডিয়ায় সেন্সের আরোপ করা হয়।

ভিডিওতে দেখানো হয়, ক্যামেরা হাতে ফটোগ্রাফার যে ছবিটা তুলছেন ওটাই হয়েছে সেই সময়কার আইকনিক ছবি 'ট্যাঙ্ক ম্যান'। একজন মানুষ হাতে ব্যাগ নিয়ে ট্যাংকের সামনে দাঁড়িয়ে আছেন। এই ছবিটি মুহূর্তেই প্রতিবাদের প্রতীকী ভাষা হয়ে ওঠে। লেইকার ভিডিওতে তাদের ক্যামেরা দিয়ে সেই ছবিটিই তোলা হচ্ছে দেখানো হয়। আরো দেখানো হয়, এই ফটোগ্রাফার চাইনিজ ভাষায় কথা বলা পুলিশের কাছ থেকে লুকাতে বা পালাতে চাচ্ছেন। 

চীনের টেক জায়ান্ট হুয়াউয়ে তাদের স্মার্টফোনের ক্যামেরার লেন্স লেইকার কাছ থেকে নিয়ে থাকে। 

ইতোমধ্যে 'লেইকা ইনসাল্টিং চায়না' হ্যাশট্যাগে দেশের সোশ্যাল মিডিয়া উইবোতে ঝড় উঠেছে। এই মিডিয়ায় লেইকার অফিসিয়াল অ্যাকাউন্টে শত শত মানুষ এমন একটি ভিডিও তৈরির সমালোচনা করে মন্তব্য দিয়েছেন। 

একজন 'চায়না থেকে বেরিয়ে যাও' লিখেছেন। আবার অনেকে আসন্ন জুনের ৪ তারিখে সেই ঘটনার ৩০তম বার্ষিকীর আগে এমন একটি ভিডিও নির্মাণ সাহসিকতার পরিচয় বলে প্রশাংসাও করেছেন। উইবো ব্যবহারকারীদের মন্তব্য প্রদান বন্ধ করে দেয়া হয় আইন ও বিধি-নিষেধের কথা তুলে।

অবশ্য লেইকার মুখপাত্র এমিলি অ্যান্ডারসনের বরাত দিয়ে হং কংয়ের সাউথ চায়না মর্নিং পোস্ট জানায়, এই ভিডিওটি বিজ্ঞাপন আকারে প্রচারের জন্যে লেইকা প্রাতিষ্ঠানিকভাবে অর্থায়ন করেনি। 

ভিডিওটি বানিয়েছে ব্রাজিলের বিজ্ঞাপন প্রতিষ্ঠান 'এফ/নাজকা সাৎচি অ্যান্ড সাৎচি'। এ ভিডিও নিয় অবশ্য হুয়াউয়ে কোনো ধরনের মন্তব্য করতে রাজি হয়নি। 

সূত্র: স্ট্রেইস টাইমস

মন্তব্য